নিজস্ব প্রতিবেদক, ঝাড়গ্রাম: ফের বিদ্যুত্স্পৃষ্ট হয়ে মৃত্যু হল বুনো হাতির। এবার ঝাড়গ্রাম জেলার বিনপুর থানা এলাকায় একসঙ্গে তিনটি হাতির মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার রাতের এই ঘটনায় বুধবার সকালেও এলাকায় চাঞ্চল্য রয়েছে। বিদ্যুত্স্পৃষ্ট হয়ে হাতির মৃত্যুর ঘটনায় বিদ্যুত্ দফতর ও স্থানীয় প্রশাসনকে দায়ী করছে এলাকাবাসী।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার রাতে বিনপুরের কুশবনির জঙ্গল থেকে ২০ টি হাতির একটি দলকে বেলপাহাড়ির দিকে সরানো হচ্ছিল। সাতবাঁকি এলাকার কাছে ১১ হাজার ভোল্টের বিদ্যুতের তার ঝুলছিল। সেই তারের মাঝখান দিয়ে ছোট হাতিগুলি চলে গেলেও বড় দাঁতালগুলি গলতে পারেনি। বিদ্যুতের তারে স্পর্শ লাগতেই প্রচণ্ড চিৎকার শুরু করে তিনটি দাঁতাল। কয়েক মিনিটের মধ্যে ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে রাতেই হুলা পার্টি ও বনাধিকারিকরা ঘটনাস্থলে যান। তারপর হাতিগুলির দেহ সরাতে বুধবার ভোরেই পুলিশ ও বনদপ্তরের আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায়। গ্রামবাসীরাও সেখানে ভিড় করেন এবং বিদ্যুৎ দফতরের বিরুদ্ধে উদাসীনতার অভিযোগে সরব হন। তাঁদের অভিযোগ, বিদ্যুতের তারগুলি দীর্ঘদিন ধরে ঝুলে রয়েছে। কিন্তু প্রশাসন বা বিদ্যুত্ দফতর কোনও পদক্ষেপ করেনি। প্রশাসন অবশ্য এর কোনও জবাব দেয়নি।

উল্লেখ্য, বছরখানেক আগে মেদিনীপুর সদর ব্লকের নেপুরা গ্রামে একই ভাবে দীর্ঘদিন ধরে ঝুলে থাকা বিদ্যুতের তারের স্পৃষ্ট হয়ে দুই দাঁতাল হাতির মৃত্যু হয়েছিল ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here