kolkata news

নিজস্ব প্রতিনিধি : সেনা-জঙ্গি সংঘর্ষে খতম ৩ জঙ্গি। এনিয়ে গত আটচল্লিশ ঘণ্টায় কাশ্মীরের সোপিয়ানে মোট ১২ জঙ্গিকে নিকেশ করল সেনা। এলাকায় অন্য কোনও জওয়ান লুকিয়ে রয়েছে কিনা, তা জানতে তল্লাশি শুরু করেছে সেনা।

জম্মু-কাশ্মীরে পাকিস্তান যে জঙ্গি ঢোকানোর প্রক্রিয়া জারি রেখেছে, ফের মিলল তার প্রমাণ। সেনা সূত্রের খবর, গত দুদিনে কাশ্মীরের সোপিয়ানের বিভিন্ন এলাকায় বারোজন জঙ্গিকে খতম করল ভারতীয় সেনা। সূত্র মারফত খবর পেয়ে সোপিয়ানের হাদিপোরায় একটি এলাকা ঘিরে ফেলে সেনা। সেনার উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি চালাতে শুরু করে জঙ্গিরা। পাল্টা গুলি চালায় সেনাও। সেনার গুলিতে শনিবার রাতেই খতম হয় এক জঙ্গি। রবিবার সকালেও নিকেশ হয় আরও দুই জঙ্গি। সব মিলিয়ে এই অভিযানে খতম হল মোট তিনজন জঙ্গি। এলাকায় আর কোনও জঙ্গি লুকিয়ে রয়েছে কিনা, তা জানতে চলছে তল্লাশি।

স্থানীয় সূত্রে খবর, জম্মু-কাশ্মীরের বিপথগামী যুবকদের সমাজের মূল স্রোতে ফেরাতে চেষ্টার কসুর করছে না সেনা। সেনার তরফে লাগাতার জঙ্গিদের খাতায় নাম লেখানো তরুণ কিংবা যুবকদের পরিবারকে বোঝানো হচ্ছে, তারা যেন আত্মসমর্পণ করে। বহু পরিবার তাদের বিপথে যাওয়া সন্তানদের সমাজের মূল স্রোতে ফেরানোর চেষ্টাও করছে। তার পরেও জঙ্গি হামলা বাড়ছে। সেনা সূত্রে খবর, এর প্রধান কারণ জঙ্গিরা বিপথগামী তরুণদের মগজ ধোলাই করছে নিয়মিত। তার জেরে চাইলেও সমাজের মূল স্রোতে ফিরতে পারছে না তারা। এদিন অভিযানে খতম এক জঙ্গির পরিবারও তাকে সমাজে ফেরাতে চাইছিলেন। যদিও তার আগেই অকালে ঝরে গেল ওই জঙ্গি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here