kolkata news

Highlights

  • সিএএ-র বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
  • ধর্নামঞ্চে উপস্থিত হতে দেখা গেল রাজ্যের ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে
  • মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী তথা তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়

মহানগর ওয়েডেস্ক: সিএএ-র বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্যজুড়ে টানা প্রতিবাদ মিছিলের পর সম্প্রতি রানি রাসমণি অ্যাভিনিউতে ধর্নায় বসেছে তৃণমূল ছাত্র পরিষদ। যেখানে প্রায়ই পৌঁছে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। এদিন সেই ধর্নামঞ্চে উপস্থিত হতে দেখা গেল রাজ্যের ৩ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে। ওই মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী তথা তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়কেও।

এদিন যে তিন উপাচার্যকে ধর্নামঞ্চে উপস্থিত হতে দেখা যায় তারা হলেন, পঞ্চানন বর্মা, সিধু কানু ও উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়। এরা ছাড়াও ওই মঞ্চে দেখা যায় বর্ধমানের জেলা শিক্ষা আধিকারিদের। তবে এই ঘটনায় বিতর্ক বেধেছে অন্য জায়গায়। গত সোমবারই রাজ্যের উপাচার্যদের নিয়ে বৈঠক করার কথা জানিয়েছিলেন জগদীপ ধনকড়। সেই বৈঠকে অবশ্য যেতে দেখা যায়নি রাজ্যের কোনও উপাচার্যকে। সেই ঘটনায় পরে অবশ্য দেখা যায়, নতুন বিধি দেখিয়ে শিক্ষা দফতরের তরফে উপাচায্যদের রাজভবন যেতে মানা করা হয়। এরপর উপাচার্যরা এবার যোগ দিলেন তৃণমূলের মঞ্চে।

তবে এই ঘটনাকে কোনও খারাপ ভাবে দেখাতে নারাজ রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টপাধ্যায়। এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে পার্থবাবু বলেন, এই ঘটনাতে দোষের তো কিছু নেই। কেউ যদি কেন্দ্র সরকারের এই কালা আইনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেন তিনি করতেই পারেন এতে সমস্যার তো কিছু নেই। তবে বিতর্ক কিন্তু থামছে না। সরকারি পদে থেকে কীভাবে একটি রাজনৈতিক দলের কর্মসূচিতে গেলেন উপাচার্যরা তা নিয়ে সরব হয়েছেন অনেকেই। এই ঘটনার নিন্দা করেছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়ও।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here