wildlife news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: সমগ্র এশিয়ায় তার প্রজাতির মধ্যে সবচেয়ে বয়স্ক সেই। বেশ কিছুদিন ধরেই তার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটছিল চরমভাবে। অবশেষে তাকে ‘মুক্তি’ দেওয়ার কঠিন সিদ্ধান্ত নিল চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ। পারতপক্ষে বলতে গেলে, তার স্বেচ্ছামৃত্যুর বাসনা পূরণ করা হল। মৃত্যু হল বছর ৭২-এর অম্বিকার।

১৯৪৮ সালে ভারতে জন্ম নেওয়া এই হাতিটি এশিয়ার সবচেয়ে বুড়ো হাতিদের মধ্যে তৃতীয়। ১৯৬১ সাল পর্যন্ত ভারতের কুরগ জঙ্গলে থাকতো অম্বিকা। পরবর্তী সময়ে ওয়াশিংটনের স্মিথসোনিয়ান জাতীয় চিড়িয়াখানায় অম্বিকাকে উপহার হিসেবে তুলে দেয় ভারত। তারপর থেকে সেই চিড়িয়াখানাতে খেলতে খেলতে বড় হয়েছে সে।

জানা গিয়েছে, কিছুদিন আগে অম্বিকার রক্ষণকারীরা লক্ষ্য করে যে তার ডান পায়ের হাটুতে বড়োসড়ো ক্ষতের সৃষ্টি হয়েছে। যার কারণে সে ভাল করে দাঁড়াতে পর্যন্ত পারছে না। তার শারীরিক পরীক্ষা করার পরে চিকিৎসকরা বুঝতে পারেন অম্বিকার শরীর প্রচন্ড ভাবে ভেঙে পড়েছে। সব রকম ভাবে চেষ্টা করা সত্ত্বেও তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি সম্ভব হচ্ছিল না চিকিৎসকদের। বলতে গেলে তাকে কষ্ট থেকে মুক্তি দিতে মৃত্যুর পথই বেছে নিলেন তারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here