নিজস্ব প্রতিবেদক, মালদা: ফের রাজনৈতিক সংঘর্ষে উত্তপ্ত উত্তর মালদার চাঁচল মহকুমার রতুয়ায়। শুক্রবার গভীর রাত থেকে শুরু হয় এই বোমাবাজী। বোমাবাজিতে আক্রান্ত হয়েছেন ৮ কংগ্রেস কর্মী। অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে। জানা গিয়েছে, রতুয়া-১ ব্লকের চাঁদমুনি-২ গ্রাম পঞ্চায়েতের ঝগড়াপাথার গ্রামে গতকাল রাত ১১টা নাগাদ নির্বাচনী কাজকর্ম সেরে ঝগড়াপাথার গ্রামে একটি চায়ের দোকানে বসেছিলেন বেশ কয়েকজন কংগ্রেস কর্মী। সেই সময় তাঁদের সঙ্গে এলাকার তৃণমূল কর্মীদের বিবাদ শুরু হয়। বিবাদ চলাকালীনই শুরু হয় বোমাবাজি। বোমার আঘাতে আহত হন অমূল্য মোশাহার(৩৫), ডোমা মোশাহার(৫০), জীতেন মোশাহার(২৮), হরগোবিন্দ মোশাহার(৪৫), পঞ্চা মোশাহার(৪০), কার্তিক মোশাহার(৩৫), নিখিল মোশাহার(২২) ও দুলাল মোশাহার(৩৫)। এরা সবাই এলাকায় সক্রিয় কংগ্রেস কর্মী হিসাবে পরিচিত। এদের মধ্যে অমূল্য, ডোমা ও জীতেনের আঘাত গুরুতর।

তাদের প্রথমে সামসী গ্রামীণ হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হলেও পরে মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বাকিরা স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসাধীন। বোমাবাজির খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে সঙ্গে সঙ্গে ছুটে যায় সামসি ফাঁড়ি ও রতুয়া থানার পুলিশ। পুলিশই আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। চাঁদমুনি-২ গ্রাম পঞ্চায়েতটি দীর্ঘদিন ধরেই কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি হিসাবে পরিচিত। তাই গ্রামবাসীদের ধারনা পঞ্চায়েতের দখল নেওয়ার জন্যই রীতিমত পরিকল্পনা করে কংগ্রেস কর্মীদের ওপর হামলা চালানো হয়েছে। ঘটনার জেরে তৃণমূলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছে স্থানীয় কংগ্রেস নেতৃত্ব। যদিও নিজেদের দিকে ওঠা অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল। তাদের দাবি কংগ্রেসই এলাকায় সন্ত্রাস চালাচ্ছে এবং তাদেরই ছোড়া বোমার আঘাতে দুই জন তৃণমূল কর্মী আহত হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here