national news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: কেন্দ্রীয় সরকারের সিএএ আইনের প্রতিবাদে টানা বিক্ষোভ কর্মসূচি চলছে দিল্লির শাহিনবাগে। যার জেরে ক্রমাগত চাপ বাড়ছে সরকারের। পাকিস্তানী থেকে শুরু করে দেশদ্রোহী, প্রতিবাদীদের বিরুদ্ধে আঙুল তুলতে ছাড়েনি বিজেপি। এহেন পরিস্থিতির মাঝেই আরও একবার শিরোনামে উঠে এল দিল্লির শাহিনবাগ। বন্দুক সহ এক যুবককে পাকড়াও করা হল শাহিনবাগের বিক্ষোভস্থল থেকে। ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। প্রতিবাদীদের তরফে জানানো হয়েছে, বিক্ষোভের মধ্যে অশান্তি বাঁধানোর জন্যই বন্দুক নিয়ে প্রবেশ করেছিল ওই যুবক।

সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, এদিন প্রতিবাদ চলাকালীন হঠাৎ স্থানীয় প্রতিবাদীরা দেখেন এক যুবক বন্দুক সহ প্রবেশ করেছে বিক্ষোভস্থলে। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পরই প্রতিবাদিরা পাকড়াও করে ওই যুবককে। তুলে দেওয়া হয় পুলিশের হাতে। এই ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে প্রতিবাদীদের মধ্যে। ঘটনার ভিডিও ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। শাহিনবাগ অফিশিয়ালের তরফে জানানো হয়েছে, ওই যুবক ডানপন্থি দলের সমর্থক। শাহিনবাগে নিরস্ত্র প্রতিবাদীদের উপর হামলা করতেই ঘটনাস্থলে এসেছিল সে। হিংসা ছড়ানোই উদ্দেশ্য ছিল তার।’ পাশাপাশি এই ঘটনার পিছনে রাজনৈতিক চক্রান্ত দেখছে প্রতিবাদীরা। বন্দুক হাতে ডানপন্থীদের কাউকে ঢুকিয়ে তাকে শাহিনবাগের প্রতিবাদী হিসাবে চালিয়ে প্রতিবাদীদের দিকে আঙুল তোলার চেষ্টা হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

যদিও তেমন কিছু ঘটার আগেই জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। সম্পূর্ণ শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ করা হচ্ছে শাহিনবাগে দুষ্কৃতীরা তা ভাঙতেই তোড়জোড় শুরু করেছে। এদিকে শাহিনবাগের প্রতিবাদকে উদ্দেশ্য করে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আনুরাগ ঠাকুর এক বিতর্কিত মন্তব্য করেন মঙ্গলবার। তিনি বলেন, দেশদ্রোহীদের গুলি করে মারা উচিত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here