নিজস্ব প্রতিবেদক, বোলপুর: চুরি করতে গিয়ে ধরা পড়ে জনরোষের শিকার হল এক যুবক। ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূম জেলার বোলপুর মহকুমার শান্তিনিকেতন থানার রতনপল্লী এলাকায়। ধৃত যুবকের নাম হাবিবুর মির্জা। বেশ কয়েকদিন ধরেই তাকে এলাকার মধ্যে ঘুরতে দেখা যাচ্ছিল বলে স্থানীয় মানুষের দাবি। পুলিশ সুত্রে খবর, বাংলাদেশ থেকে আসা এক যুবতী বিশ্বভারতীতে পড়াশুনা করার সুত্রে বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশেই রতনপল্লী এলাকায় ভাড়া থাকে। রবিবার রাত আটটা নাগাদ সে পাসপোর্ট নিয়ে একটি জেরক্স দোকানে যায়।

পাসপোর্ট জেরক্স করে বেরোনোর সময় হঠাৎই ওই যুবক তার হাত থেকে পাসপোর্টটি ছিনিয়ে নিয়ে পালাতে থাকে। যুবতীর চিৎকারে ওখানকার বাসিন্দারা ওই যুবককে তাড়া করে ধরেও ফেলে। এরপর চলে গণধোলাই। খবর পেয়েই পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ওই যুবককে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বোলপুর প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যায়। পুলিশ ওই যুবককে গ্রেফতার করলেও তারা তদন্তে নেমে এটাই জানার চেষ্টা করছে সে কেন পাসপোর্টটি চুরি করার চেষ্টা করেছিল। উল্লেখ্য, গত শনিবারে বোলপুরের একটি বাড়িতে এক যুবক চুরি করতে এসে হাতেনাতে ধরা পড়ে যায়, তারপর তাকে রাস্তার একটি বৈদ্যতিক খুঁটিতে বেঁধে চলে গণপ্রহার। সেই দৃশ্য আবার রীতিমত ভাইরাল হয় স্যোশাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ার দৌলতে।