news entertainment

মহানগর ওয়েবডেস্ক : লকডাউনের জন্য গোটা দেশেই নানা প্রান্তে আটকে পড়েছে একাধিক মানুষ। কেউ কর্মসূত্রে কিংবা কেউ বেড়াতে গিয়েই বন্দি হয়ে রয়েছেন। এই একই অবস্থায় পড়তে হয়েছে অভিনেতা বিক্রম চ্যাটার্জিকে। মুম্বইতে একটি কাজে গিয়েছিলেন অভিনেতা। কলকাতায় ফেরার টিকিট ছিল গত ২৫ মার্চ কিন্তু করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে লকডাউন জারি হওয়ায় মুম্বইতে এক বন্ধুর বাড়িতে থাকতে হচ্ছে অভিনেতাকে।

এই বিষয়ে ফোন যোগাযোগ করা হলে বিক্রম জানান, ‘দেশের মধ্যে করোনাভাইরাসে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে মহারাষ্ট্র। এই মুহুর্তে আমি মুম্বইতে আছি। যতটা সাবধানতা অবলম্বন করা যায় করছি, এখানে সবাই তাই করছে। খুব প্রয়োজন না হলে কেউ বাইরে বেরোচ্ছে না, মুম্বইতে পুলিশ প্রশাসন খুবই সক্রিয়। খুবই ভালো কাজ করছে তারা।’

আগামী ১৫ এপ্রিল কলকাতায় ফেরার টিকিট রয়েছে বিক্রমের কিন্তু লকডাউনের সময়সীমা যদি বাড়িয়ে দেওয়া হয় তাহলে হয়ত সেই টিকিটও বাতিল করতে হতে পারে। সেই সম্ভাবনা প্রসঙ্গে অভিনেতা জানান, ‘ তাতে কোনও অসুবিধা নেই। সবার ভালোর জন্য সরকার যাই পদক্ষেপ নিক সবটাই সমর্থন করি আমি।’ যদিও একটা চিন্তা রয়েছে বিক্রমের, সেটা হল, ‘কলকাতায় বাড়িতে বাবা–মা, বোন আছে। এখানেও একটা বন্ধুর বাড়িতে আছি, নিজের কাজটা নিজেকেই করতে হচ্ছে কারণ কাজের লোক আসা বন্ধ হয়ে গিয়েছে। তাই একটু অসুবিধা হলেও মানিয়ে নিতে হচ্ছে।’

অভিনেতা আরও জানান , ‘খাওয়া দাওয়ার ক্ষেত্রে কোনও সমস্যা হচ্ছে না। আমি যেখানে আছি সেই সোসাইটির বাইরে একটা দোকান আছে সেখানে সবই পাওয়া যাচ্ছে। অসুবিধা হচ্ছে না।’ বাড়ির বাইরে খুবই কম বেরোচ্ছেন বিক্রম। আর বেরোলেও মাস্ক ও হ্যান্ড গ্লাভস পড়েই মুম্বইতে বাইরে যাচ্ছেন অভিনেতা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here