FotoJet1318

ডেস্ক: আদালত ও নির্বাচন কমিশনের মধ্যে একদিকে যেমন ঘুরপাক খাচ্ছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক। তেমনই বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের কাছে কড়া ভাষায় আক্রমণ হতে হচ্ছে ‘পি এম নরেন্দ্র মোদী’ সিনেমাটিকে। এবার সেই সংক্রান্ত বিষয়ে সরাসরি প্রধানমন্ত্রীকেই বাক্যবাণে বিঁধলেন সদ্য রাজনীতিতে যোগ দেওয়া অভিনেত্রী উর্মিলা মাতোন্ডকার। রাজনীতিতে তাঁর বয়স মাত্র একমাস কিন্তু এরই মধ্যে কংগ্রেসের সদস্য হয়ে চলতি লোকসভা নির্বাচনে ভোটে দাঁড়িয়েছেন উর্মিলা।

 

গতকাল তাঁর নির্বাচনী কেন্দ্র মুম্বই উত্তরে ভোটপ্রচারে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীলে লাগামছাড়া আক্রম করেন তিনি। বেশ কয়েকদিন ধরেই চর্চায় আছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক। সেই বিষয় নিয়ে মুখ খুলে উর্মিলা জানান, ”নরেন্দ্র মোদীর জীবনির উপর যে বায়োপিক হয়েছে সেটা শুধুমাত্র একটা রসিকতা। যিনি দাবি করেন তাঁর ৫৬ ইঞ্চি ছাতি রয়েছে অথচ দেশের মানুষের জন্য কিছুই করে উঠতে পারেননি। তাঁর জীবনি নিয়ে সিনেমা বানানো মানে গণতন্ত্রের অপমান, দেশের বৈচিত্র্য ও সংস্কৃতির অপমান। যেটা তিনিই নষ্ট করে দিয়েছেন।”

পাশাপাশি তিনি এও জানান, ”তবে প্রধানমন্ত্রীর জীবনি নিয়ে একটি কমেডি সিনেমা হতে পারে। কারণ দেশবাসীর কাছে দেওয়া তাঁর মিথ্যা প্রতিশ্রুতি নিয়ে একটা সিনেমা হওয়া উচিত।” নির্বাচন কমিশনের নিষেধাজ্ঞার জেরে সিনেমাহলে মুক্তি স্থগিত রয়েছে ‘পি এম নরেন্দ্র মোদী’র। তবে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে গতকাল কমিশন সিনেমাটি দেখেছেন এবার তাঁদের চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছেন ‘পি এম নরেন্দ্র মোদী’র প্রযোজক। কিছুদিন আগেই বিবেক ওবেরয়কে জিজ্ঞাসা করা হয় তিনি কেন নরেন্দ্র মোদীর জীবনি নিয়ে সিনেমা বানালেন, রাহুল গান্ধী নয় কেন? সেই প্রশ্নের উত্তরে বিবেক জানান, ”কেন আমি রাহুল গান্ধীর জীবনি নিয়ে সিনেমা বানাব? দেশের জন্য তিনি কী করেছেন? তাঁর বায়োপিক বানাতে গেলে আমাকে থাইল্যান্ডে শ্যুটিং করতে হত।”

 

‘পি এম নরেন্দ্র মোদী’ বায়োপিকে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে বিবেক ওবেরয়কে। অপরদিকে মুম্বই উত্তর লোকসভা কেন্দ্রে উর্মিলা ভোটে লড়ছেন তাঁর বিপরীতে নির্বাচনে বিজেপির হয়ে দাঁড়িয়েছেন গোপাল শেট্টী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here