নিজস্ব প্রতিবেদক, বারুইপুর: সদ্যোজাত কন্যা সন্তানকে হাসপাতালে ফেলে পালিয়ে গেল মা। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিন ২৪ পরগনা জেলার ভাঙড়ের জিরানগাছা হাসপাতালে। ঘটনায় পুলিশি তদন্তে উঠে এসেছে ভুয়ো নাম,পরিচয়ে ভর্তি হয়েছিল ওই মহিলা।

জানা গিয়েছে, গত ২৪ অক্টোবর বুধবার দুপুর একটা নাগাদ ব্যপক প্রসব যন্ত্রনা নিয়ে এক গর্ভবতী মহিলা ভাঙড়ের জিরানগাছা হাসপাতালে ভর্তি হয়। এরপর কোন রকম ঝুঁকি না নিয়ে ভর্তির দিন দুপুরেই তার অপারেশন করা হয়। অপারেশন ওই প্রশ্রুতি মহিলা এক কন্যা সন্তানের জন্ম দেয়। শেষে সন্ধ্যায় জিরান গাছা হাসপাতাল চত্বর লোডশেডিং হয়ে যাওয়ার সুযোগ নিয়ে সদ্যোজাত কন্যা সন্তানকে ফেলে বেপাত্তা হয়ে যায় মা। সন্ধ্যার পর সদ্যোজাত শিশুটির মায়ের খোঁজ না পেয়ে কাশিপুর থানায় খবর দেয় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। পুলিশ এসে সদ্যোজাত কন্যা সন্তানকে দেখে। তারপর সরকারি চাইল্ড লাইনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। ঘটনায় শুক্রবার চাইল্ড লাইনের কর্তারা জিরান গাছা হাসপাতালে আসবে বলে জানা গিয়েছে।

পাশাপাশি কাশিপুর থানার পুলিশ তদন্তে নেমে জানতে পারে, ভর্তির সময় ওই মহিলা হাসপাতালের রেজিস্টারে যে নাম,পরিচয় এবং ঠিকানা দিয়েছিল সেটা সম্পূর্ণ ভুয়ো। নাম ভাঁরিয়ে ওই মহিলা হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল কেন তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।আপাতত ওই সদ্যোজাত কন্যা সন্তান হাসপাতালে আছে। ফেলে যাওয়া সদ্যোজাত কন্যা সন্তানকে দেখতে স্থানীয় বাসিন্দা এবং অন্যান্য রোগীর পরিবারের লোকজন ভিড় জমায়।হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সরকারি চাইল্ড লাইনের নিয়ম মেনে ওই সদ্যোজাত কন্যা সন্তানকে হোমে বা অন্য কোথাও রাখার ব্যবস্থা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here