প্রত্যাশা পূরণে ব্যর্থ হিটম্যান

মহানগর ডেস্ক: ভারতের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টে টসে জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্তে চূড়ান্ত সফল ইংল্যান্ড। সদ্য অস্ট্রেলিয়া থেকে কার্যত ‘তৃতীয় সারির’ দল নিয়ে ‘ঐতিহাসিক সিরিজ’ জিতে ফেরা টিম ইন্ডিয়ার বোলারদের নিয়ে ছিনিমিনি খেলল ইংল্যান্ড। অধিনায়ক জো রুটের ব্যাটে ভর করে রানের পাহাড়ে চড়ল ব্রিটিশরা।
ইংল্যান্ডের ৫৭৮ রান তাড়া করতে নেমে দুই ওপেনারকে হারিয়ে ইতিমধ্যেই চাপে ভারতীয় দল। ক্রিকেট ভক্তদের প্রত্যাশা মোটেই পূরণ করতে পারলেন না রোহিত শর্মা। ৯বলে মাত্র ৬রান করেই আউট হন হিটম্যান। জোফ্রা আর্চারের বলে উইকেটরক্ষক বাটলারের হাতে উইকেট তুলে দিয়ে আসেন তিনি। অন্যদিকে, আর এক ওপেনার শুভমন গিল তাঁর বাড়তি আগ্রাসী মনোভাবের কারণে মাত্র ২৯রানেই আউট হন।  ক্রিজে বেশিক্ষণ টিকে থাকতে পারলেন না অধিনায়ক বিরাট  কোহলি। মাত্র এগারো  রান করেই আউট হন তিনি। এক রানে ফিরে যান সহ অধিনায়ক অজিঙ্কা রাহানে। ক্রিজে নতুন ব্যাটসম্যান চেতেশ্বর পূজারা ও ঋষভ পন্থ। মূল্যবান চার উইকেট 
হারিয়ে প্রবল চাপে ভারতীয় দল।
প্রথম দিন ব্যাট করতে নেমে ৩ উইকেট হারিয়ে ২৬৩ রান তোলে ইংল্যান্ড। ৩৩ রান করে বুমরার বলে এলবিডব্লিউ হন বার্নস। ২৮৬ বলে ৮৭ রানের লড়াকু ইনংস খেলেন সিবলি। শতরান করেন অধিনায়ক জো রুট। দ্বিতীয় দিন ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই ব্যাট চালাতে শুরু করেন রুট এবং অলরাউন্ডার বেন স্টোকস। ৮২ রান করে শাহবাজ নাদিমের বলে স্টোকস আউট হলেও ২১৮ রানের লড়াকু ইনিংস খেলেন অধিনায়ক জো রুট। বিশ্বের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে নিজের শততম টেস্টে ডবল সেঞ্চুরি করার কৃতিত্ব অর্জন করেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক। ধন্য ধন্য করছে ক্রিকেট মহল।
দ্বিতীয় দিনে শেষে আট উইকেট হারিয়ে ৫৫৫ রানের শিখরে পৌঁছয় ইংল্যান্ড। তৃতীয় দিন সকালে ব্যাট করতে নেমে ৫৭৮ রানে ইনিংস শেষ করে ইংল্যান্ড। বুমরা ও অশ্বিন ৩টি করে উইকেট নেন। ২টি করে উইকেট পেয়েছেন ইশান্ত ও নাদিম। তবে তৃতীয় দিনে ব্যাট করতে নেমে চেন্নাইয়ের পিচ থেকে বাড়তি সুবিধা যে পাবেন না ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা, সে কথা আগেই জানিয়েছেন ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরা। যত সময় গড়াবে, পিচ ততই খারাপ হবে বলে মত বিশেষজ্ঞদের। এমন অবস্থায় ইংল্যান্ডের রানের পাহাড়ের চূড়ায় ভারতীয় টিম পৌঁছতে পারে কিনা, সেটাই এখন দেখার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here