ডেস্ক: ভর্তিতে তোলাবাজির অভিযোগে জয়পুরিয়া কলেজের প্রাক্তন জিএস তিতান সাহাকে সোমবার সকালে গ্রেফতার করল লালবাজারের গোয়েন্দা বিভাগ। সূত্রের খবর, মোট ১৭ টি অভিযোগ থানায় দায়ের রয়েছে তিতানের বিরুদ্ধে। অভিযোগ পাওয়ার পরেই তিতানের খোঁজে বিভিন্ন জায়গায় হানা দেয় গোয়েন্দারা ৷ শেষ পর্যন্ত পুলিশের জালে ধরা পড়ে তিতান ৷

জানা গেছে যে, তোলাবাজি কাণ্ডে তিতানের সঙ্গে সুরেন্দ্রনাথ কলেজের গ্রুপ-ডি কর্মী রাতুল ঘোষও জড়িত ছিলেন। এদিন কলেজ স্কোয়ারে রাতুলের বাড়িতেও গোয়েন্দারা হানা দেয়। সেখান থেকে তারা প্রচুর নথিপত্র, মার্কশিট উদ্ধার করে।

প্রসঙ্গত, কলেজগুলিতে ভর্তিপ্রক্রিয়া শুরু হওয়ার পর থেকেই আসন বিক্রির অভিযোগ বারবার উঠে আসছে। তার ওপর বহিরাগতদের দাদাগিরি, প্রাক্তনদের হুমকি তো লেগেই রয়েছে। এই ঘটনায় উত্তর কলকাতার নামী কলেজ মনীন্দ্রচন্দ্র কলেজের নাম উঠে এসছে। সেখানেও তোলাবাজির অভিযোগে কলেজের সামনে থেকেই রীতেশ জয়সওয়াল ও লালসাহেব গুপ্তা নামে দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে কলেজ চত্বরে যথেষ্ট উত্তেজনা ছড়িয়েছে ৷ সোমবার সকালে মুখ্যমন্ত্রী আশুতোষ কলেজে সারপ্রাইজ ভিসিট করেন। মুলত কলেজের ভর্তি নিয়ে ভুরিভুরি অভিযোগ এবং কোনও দুর্নীতি হচ্ছে কিনা তা খতিয়ে দেখতে যান। প্রথমে জয়পুরিয়া কলেজ এবং পরে মনীন্দ্রচন্দ্র কলেজ পরিদর্শনে যান শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here