মহানগর ওয়েবডেস্ক: গত কয়েক মাসে উত্তরপ্রদেশে একের পর এক খুন হয়েছেন হিন্দু সংগঠনের নেতারা। সেই ধারা এখনও অব্যাহত রইল যোগী রাজ্যে। এবার খোদ যোগী আদিত্যনাথের নিজের হাতে তৈরি হিন্দু সংগঠন ‘হিন্দু যুব বাহিনী’র এক নেতার মৃতদেহ উদ্ধার করল পুলিশ। সঞ্জয় সিং নামের ৩৭ বছর বয়সী ওই যুবককে খুন করা হয়েছে বলে দাবি পুলিশের। এই ঘটনায় রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। যদিও এই খুনের সঙ্গে অভিযুক্ত কোনও ব্যক্তিকে এখনও পর্যন্ত গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। তদন্ত চলছে বলে জানানো হয়েছে পুলিশের তরফে।

সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার অনেক আগে ২০০২ সালে এই সংগঠন তৈরি করেছিলেন যোগী আদিত্যনাথ। এই সময় গোরক্ষপুরের সাংসদ ছিলেন যোগী। বরেলির বাসিন্দা সঞ্জয় সিং ওই সংগঠনেরই একজন সক্রিয় সদস্য। সংগঠনের হয়ে বরেলি জেলার সহ-সভাপতির দায়িত্বে ছিলেন তিনি। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা নাগাদ ডুনকা এলাকায় তার নিজের একটি হাসপাতালে কাছ থেকে উদ্ধার হয় ওই ব্যক্তির মৃতদেহ। এরপরই গোটা ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিশ । যে স্থান থেকে সঞ্জয়ের মৃতদেহ উদ্ধার হয়েছে সেখানকার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। পাশাপাশি হাসপাতালে বেশ কয়েকজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, বৃহস্পতিবার হাসপাতালে কাছ থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করার সময় দেখা যায় তার শরীরে একাধিক ক্ষতচিহ্ন রয়েছে। দেহ ময়নাতদন্তে পাঠানোর পাশাপাশি অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে শুরু হয়েছে তদন্ত। এদিকে মৃতের এক আত্বীয়ের দাবি, হিন্দু যুব বাহিনীর সক্রিয় হওয়ার সুবাদে এলাকায় প্রচুর শত্রু ছিল তার তাদেরই কেউ এই খুনের সঙ্গে যুক্ত বলে দাবি করা হচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here