শুধু বরিষ্ঠ দলনেতা নয়, পরিবারের সদস্য হারালাম: জেটলির মৃত্যুতে শোকাতুর অমিত

0
28

মহানগর ওয়েবডেস্ক: ৬ অগস্ট সুষমা স্বরাজ, ২৪ অগস্ট অরুণ জেটলি। অগস্ট মাসটা শোকের নদীতে ভাসিয়ে দিল ভারতীয় জনতা পার্টিকে। পদ্মশিবিরের দুই নক্ষত্র ছেড়ে চলে গেলেন ইহলোক। ২০১৪ থেকে ২০১৯ পর্যন্ত প্রথম মোদী সরকারের জমানার অর্থমন্ত্রী ছিলেন জেটলি। এদিন দুপুর ১২টা ৭-এ দিল্লির এইমসে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। জেটলির মৃত্যুর খবর পেয়ে কার্যত ভেঙে পড়েছেন তাঁর সতির্থরা। নরেন্দ্র মোদী থেকে রাজনাথ সিং, অমিত শাহ, নীতীন গড়করি সকলেই বিপর্যস্ত। প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর মৃত্যুর খবর পেয়েই দলীয় কর্মসূচি বাদ দিয়ে দিল্লি ফিরে আসছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

অরুণ জেটলির মৃত্যুর খবর পেয়েই শোকপ্রকাশ করেছেন অমিত শাহ। শনিবার হায়দরাবাদে সর্দার বল্লভভাই প্যাটেলের নামে একটি পুলিশ অ্যাকাডেমির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসেছিলেন অমিত শাহ। সেই অনুষ্ঠান ফেলেই দিল্লি পথে রওনা দেন তিনি। জেটলির মৃত্যুতে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘অরুণ জেটলিরজির প্রয়াণে আমি গভীরভাবে শোকাহত। এটা আমার জন্য ব্যক্তিগত ক্ষতির সমান। আমি কেবল একজন বরিষ্ঠ দলের নেতাকে হারালাম না বরং একজন পরিবারের সদস্যকে হারালাম যিনি সর্বদা আমাকে পথ দেখিয়েছেন।’

প্রসঙ্গত, দীর্ঘদিন ধরে কিডনির রোগে ভুগছিলেন জেটলি। শ্বাসকষ্ট নিয়ে তিনি গত ৯ অগস্ট ভর্তি হন এইমসে। তারপর থেকেই যমে-মানুষে টানাটানি চলছে জেটলিকে নিয়ে। অত্যন্ত সংকটজনক অবস্থায় বেশ কয়েকদিন ভেন্টিলেশনে কাটানোর পর এদিন দুপুর ১২টার পরই না ফেরার দেশে চলে যান জেটলি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here