kolkata news
Highlights

  • কয়েকশো বছরের প্রাচীন পুকুর সংস্কারের সময় উদ্ধার হল কষ্টি পাথরের বিষ্ণু মূর্তি
  • প্রায় সাড়ে তিন ফুট উচ্চতার এই মূর্তি উদ্ধার হয়েছে অক্ষত অবস্থায়
  • এই মূর্তি উদ্ধার ঘিরে উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জের দিলালপুর-সহ আশপাশের এলাকায় ব্যাপক আলোড়ন পড়েছে, তার সঙ্গে ছড়িয়েছে এই মূর্তির দৈব শক্তির কথা


নিজস্ব প্রতিনিধি, কালিয়াগঞ্জ:
কয়েকশো বছরের প্রাচীন পুকুর সংস্কারের সময় উদ্ধার হল কষ্টি পাথরের বিষ্ণু মূর্তি। প্রায় সাড়ে তিন ফুট উচ্চতার এই মূর্তি উদ্ধার হয়েছে অক্ষত অবস্থায়। দোল পূর্ণিমায় ভগবান বিষ্ণুর মূর্তি উদ্ধারের পর গ্রামের মঙ্গল কামনায় এই মূর্তির প্রতিষ্ঠা করা হয় গ্রামের শিবমন্দিরে। এই মূর্তি উদ্ধার ঘিরে উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জের দিলালপুর-সহ আশপাশের এলাকায় ব্যাপক আলোড়ন পড়েছে। তার সঙ্গে ছড়িয়েছে এই মূর্তির দৈব শক্তির কথা।

এলাকার লোকজন বলতে থাকেন, উদ্ধারের পর এই মূর্তিটি গোপনে অন্যত্র নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা হলে খারাপ হয়ে হয়ে যায় পুকুর সংস্কারের কাজে যুক্ত জেসিবি মেশিন। যে ট্রাক্টরে এই মূর্তিটি তোলা হয়েছিল, তার চাকা নাকি নড়তে চাইছিল না। এসব কাণ্ড দেখে পুকুর সংস্কারের কাজে যুক্ত শ্রমিকরা ভয় পেলে গুঞ্জন শুরু হয়। এরপর কানাঘুষো শুরু হলে আশপাশের বাসিন্দারা সেখানে এলে মূর্তি উদ্ধারের ঘটনাটি জানাজানি হয়।

গ্রামের মানুষ একত্রিত হয়ে সেই মূর্তি তুলে নিয়ে আসে শিবমন্দিরে। দোল পূর্ণিমার পুণ্য তিথিতে সোমবার এই বিষ্ণু মূর্তি প্রতিষ্ঠা করা হয়। গ্রামের মঙ্গল কামনায় এই মূর্তির পুজোপাঠ শুরু হয়েছে দিলালপুর শিবমন্দিরে। দোল উৎসবের পুণ্য তিথিতে মাটি ফুঁড়ে ভগবান বিষ্ণুর মূর্তি উঠে আসার খবরে দেবদর্শনে আগত মানুষের ভিড়ে জমজমাট দিলালপুর শিবমন্দির। গ্রামের বাসিন্দা তথা পঞ্চায়েত সমিতির প্রাক্তন সদস্য জানান, অশ্বিনী দেবশর্মার পুকুর সংস্কারের সময় এই বিষ্ণু মূর্তিটি পাওয়া গেছে। দোল পূর্ণিমার দিন গ্রামের পুকুর থেকে উঠে আসা এই মূর্তিটিকে বিকেলে প্রতিষ্ঠা করা হয় গ্রামের শিবমন্দিরে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here