kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি: আসানসোলের দাপুটে তৃণমূল নেতা  জিতেন্দ্র তেওয়ারি বিজেপিতে যোগদান করার পর বিক্ষিপ্ত ঘটনায় অশান্ত এলাকা। এবার পাণ্ডবেশ্বরে প্রহৃত হয়েছেন দুই বিজেপি কর্মী। অভিযোগের তির তৃণমূল ব্লক সভাপতি নরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তীর অনুগামীদের দিকে। গুরুতর আহত দুই বিজেপি কর্মী দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ওই দুই বিজেপি কর্মীর নাম কমলেশ পাসোয়ান ও রমেশ পাসোয়ান।

জানা গিয়েছে, গতকাল সন্ধ্যেয় বিধায়ক জিতেন্দ্র তেওয়ারি বিজেপিতে যোগদানের পর পাণ্ডবেশ্বরের ৭ নম্বর পিট এলাকায় বিজেপি কর্মীরা উৎসাহিত হয়ে দলের পতাকা লাগাচ্ছিলেন। অভিযোগ, সেই সময় তৃণমূল ব্লক সভাপতি নরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তীর অনুগামী প্রায় ১০-১২ জন যুবক এসে তাদের ওপর চড়াও হয়। লোহার রড, বাঁশ, লাঠি দিয়ে হামলা চালানো হয় বলে অভিযোগ। এই হামলায় গুরুতর জখম হন স্থানীয় বিজেপি কর্মী কমলেশ পাসোয়ান। দাদাকে বাঁচাতে এসে জখম হন রমেশ পাসোয়ান। দু’জনকেই গুরুতর আহত অবস্থায় দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। কমলেশের পায়ে, কানে ও হাতে গুরুতর চোট লেগেছে। রমেশের মাথায় চোট আছে। কমলেশের অভিযোগ, হামলাকারীরা প্রত্যেকেই স্থানীয় অবৈধ কয়লা ব্যবসায় জড়িত। ঘটনায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়েছে পাণ্ডবেশ্বর এলাকায়।

অন্যদিকে, জিতেন্দ্র তিওয়ারির দলবদলের সঙ্গে সঙ্গে তাঁর বিধায়ক কার্যালয় দখল নিয়েছেন তৃণমূল কর্মীরা। গোবর জল ছিটিয়ে করা হল শুদ্ধিকরণ। ভেঙে দেওয়া হল জিতেন্দ্র তিওয়ারি নামের ফলক। জিতেন্দ্র তিওয়ারি বিজেপির ঝান্ডা ধরার খবর ছড়িয়ে পড়তে পাণ্ডবেশ্বরের তৃণমূল কংগ্রেসের ব্লক সভাপতি নরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তী, পশ্চিম বর্ধমান জেলার কো-অর্ডিনেটর হরে রাম সিং-এর নেতৃত্বে প্রচুর তৃণমূল কর্মী-সমর্থক হরিপুরে অবস্থিত জিতেন্দ্র তিওয়ারি বিধায়ক কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে সেই কার্যালয় দখল নেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here