camel australia

Highlights

  • অস্ট্রেলিয়ার নানা এলাকায় প্রায় ৫০০০ উটকে গুলি মেরে হত্যা করা হয়েছে
  • অস্ট্রেলিয়ার এই এলাকায় মূলত উটেদের কীট হিসেবে বিবেচনা করা হয়
  • উটের কারণে বহু জায়গার জলও দূষিত হচ্ছে বলে দাবি করা হয়েছে এলাকাবাসীর তরফ থেকে

মহানগর ওয়েবডেস্ক: ২০১৯ সালে পৃথিবীর সর্বাধিক অনাবৃষ্টি দেখেছে অস্ট্রেলিয়া। বিপদ বাড়িয়েছে পাল্লা দিয়ে চলতে থাকা দাবানল। মহাদেশের বিস্তীর্ণ এলাকা জুড়ে জলকষ্টে রয়েছেন বহু জনজাতি ও আদিবাসী সম্প্রদায়ের মানুষ। পরিস্থিতির এহেন সাঁড়াশি চাপে পড়ে নিষ্ঠুর অথচ আবশ্যক এক সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে সরকারকে। গত পাঁচ দিন ধরে অস্ট্রেলিয়ার নানা এলাকায় প্রায় ৫০০০ উটকে গুলি মেরে হত্যা করা হয়েছে। উটের বাড়তে থাকা সংখ্যা আদিবাসী জনজাতির জন্য বিপদ বাড়িয়ে দিচ্ছিল বলে দাবি করা হয়েছে অস্ট্রেলিয়া সরকারের তরফে। তাই এদের হেলিকপ্টার থেকে গুলি করে মারা হয়েছে।

ঘটনা হচ্ছে, মাত্রাতিরিক্ত গরমের সঙ্গে যুঝতে থাকা গ্রামের আদিবাসীদের এলাকায় উটের যাতায়াত ইদানীং সময়ে বৃদ্ধি পেয়েছে। সে সব জায়গায় খাবারের থেকেও বেশি দুর্লভ হয়ে পড়েছে পানীয় জল। যার জন্য উটেদের দুষছেন আদিবাসী নেতাদের একাংশ। যেহেতু উট একেবারে কয়েক লিটার জল তাদের কুঁজে জমিয়ে রাখতে পারে, তাই মানুষই পর্যাপ্ত পানীয় জলের সংস্থান পাচ্ছেন না। অভিযোগ এমনটাই। এছাড়াও ভ্রাম্যমান উটের দলের কারণে পথ দুর্ঘটনার সংখ্যা বিপুল পরিমাণে বেড়েছে অস্ট্রেলিয়ায়। সব মিলিয়ে দক্ষিণ অস্ট্রেলিয়ার উত্তর-পশ্চিম ভাগে প্রায় ২,৩০০ মানুষ উটের বাড়তে থাকা সংখ্যার কারণে প্রভাবিত হয়েছেন বলে জানানো হয়েছে। এই নিয়ে পশু রক্ষা কমিশনের তরফে দুশ্চিন্তা প্রকাশ করা হলেও স্থানীয় নেতারা বলছেন তাদের জীবনযাপনের সমস্যার কথাও ভেবে দেখতে।

অস্ট্রেলিয়ার এই এলাকায় মূলত উটেদের কীট হিসেবে বিবেচনা করা হয়। ‘তাই ভূমি সংরক্ষক হিসেবে সেসব কীট-পতঙ্গের সঙ্গে লড়া অত্যাবশ্যক যারা মনুষ্য সমাজের জন্য বরাদ্দ জল খেয়ে ফেলে এবং আমাদের ছোট ছোট শিশু, বয়স্ক এবং দেশি বনস্পতির জীবনকে বিপদের মুখে ঠেলে দেয়।’ বলেন স্থানীয় এক নেতা। উটের কারণে বহু জায়গার জলও দূষিত হচ্ছে বলে দাবি করা হয়েছে এলাকাবাসীর তরফ থেকে।

গোটা বিশ্বে সবথেকে বেশি জংলী উট দেখতে পাওয়া যায় অস্ট্রেলিয়াতেই। সরকারি সূত্রের অনুমান, ১০ লক্ষের বেশি উট মরুভূমিতে ভ্রাম্যমান অবস্থায় রয়েছে। এবং প্রত্যেকদিন ঘুরে ঘুরে তারা নানা জায়গায় গাছপালা খেয়ে নিচ্ছে। যার ফলে ভূগর্ভস্থ জলের স্তরও আরও নীচে নেমে যাচ্ছে। যদিও অস্ট্রেলিয়া সরকারের তরফে উট হত্যার বিষয়ে কিছুটা নরম মনোভাব দেখানো হয়েছে। আগে ১০,০০০ উট হত্যা করা হবে বলে ঠিক হলেও ৫,০০০-এই থেমেছে অজি সরকার।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here