টাকা তছরুপ ও দুর্ব্যবহারের অভিযোগে ব্যাঙ্কে তালা ঝুলিয়ে বিক্ষোভ গ্রাহকদের

0
282

নিজস্ব প্রতিবেদক, মেদিনীপুর: আমানতকারীদের গচ্ছিত অর্থ তছরুপ, গ্রাহক দের সাথে দুর্ব্যবহারের অভিযোগে একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কে তালা ঝুলিয়ে বিক্ষোভ দেখায় আমানতকারী ও বাসিন্দারা। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার ঝাড়্গ্রাম জেলার লোধাশুলির সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়াতে। এদিন আমানতকারীরা ব্যাঙ্কের গেটে তালা লাগিয়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য অবস্থান বিক্ষোভে বসেন।

জানা গিয়েছে, লাউরিয়াদামের বাসিন্দা ছটু মালি-র বাংলা আবাস যোজনার বাড়ি তৈরীর টাকা ঢুকেছিল। পরে ব্যাঙ্ক থাকা টাকা তুলতে গিয়ে দেখেন তার অ্যাকাউন্ট থেকে বেশ কিছু টাকা কেটে নিয়েছে ব্যাঙ্ক। পরবর্তী সময়ে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষের কাছে কারন জানতে চাইলে লোনের টাকা কাটা হয়েছে বলে জানান ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষ। ছটু মালির দাবির তিনি কখনো সেন্টার ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার থেকে কোনো রূপ লোন নেননি। যদিও ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষের সাফাই, নাম বিভ্রাটের কারণে এই ভুল। এই ভুলের জন্যই বাংলা আবাস যোজনার টাকা তুলতে পারছেননা বলে সাংবাদিকদের সামনে ক্ষোভ উগরে দেন ভুক্তভোগী।

একই অভিযোগ বেলিয়া গ্রামের বাসিন্দা মোহনি মাহাতর। তিনি অভিযোগ করেন, ২০১৮ সালের বাংলা আবাস যোজনার টাকা এখনো পর্যন্ত তুলতে পারেননি। গ্রাহক ও বাসিন্দাদের আরও অভিযোগ বেশীর ভাগ দিনেই ব্যাঙ্কে লিঙ্ক থাকেনা। যার ফলে বন্ধ থাকে সমস্ত রকমের পরিষেবা। তার জেরে চরম সমস্যায় পড়তে হয় আমানতকারিদের। বারে বারে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষকে আবেদন নিবেদন করেও কোনো সুরাহা হয়নি বলে অভিযোগ। তাই এক প্রকার বাধ্য হয়ে ব্যাঙ্কে তালা লাগানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বাসিন্দাদের দাবি, উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ সমস্যার সমাধান না করলে অনির্দিষ্ট কালের জন্য ব্যাঙ্ক বন্ধ থাকবে। ব্যাঙ্কর ম্যানেজার রঞ্জিত কুমার কেশরী সমস্যার কথা স্বীকার করে নিয়ে বলেন, “ভাষা সমস্যার জন্য অ্যাসিস্টেন্ট ম্যানেজার সুরেন্দ্রনাথ মুর্মূকে দেখাশুনার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। সে কারনে কিছু সমস্যা হয়ে থাকতে পারে। আর গত দু মাস হল এখানে নতুন এসেছি। তার আগে কী হয়েছে আমি ঠিক বলতে পারবো না। তবে পুরো বিষয়টি নিয়ে আমি তদন্ত করে দেখবো।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here