kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, শিলিগুড়ি: কনটেইনমেন্ট জোনে বসানো ব্যারিকেড মানা হচ্ছে না। বিষয়টি নজরে আসতেই উষ্মা প্রকাশ করলেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। যদিও এবিষয়ে কোনও প্রকার মন্তব্য করতে নারাজ তারা। যদিও প্রতিনিধি দলের তরফে অজয় গাঙ্গোয়ার বলেন, পর্যবেক্ষণ করছি। সবটাই রাজ্যকে জানানো হবে।

গতকাল জলপাইগুড়ির পর আজ ফের শিলিগুড়িতে পরিদর্শন করেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। এদিন শহর পরিদর্শন করেন প্রতিনিধি দলের তিন সদস্য। বাকি দুই সদস্য রওনা দেন পাহাড়ের উদ্দেশে। এদিন সকালেই কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা ডিসান হাসপাতালে যান। সেখানে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা রওনা দেন শিলিগুড়ি পুর এলাকার ৪৭ নম্বর ওয়ার্ডে। সেখানে কনটেইনমেন্ট এলাকা পরিদর্শন করেন৷ পরে বাগডোগরার কমলপুর চা-বাগানে পৌঁছন তারা৷ কথা বলেন বাগান কতৃপক্ষ-সহ শ্রমিকদের সঙ্গে। খতিয়ে দেখেন স্বাস্থ্য বিধি আদৌ মানা হচ্ছে কি না।

এদিন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের তরফে অজয় গাঙ্গোয়ার বলেন, পর্যবেক্ষণ করছি৷ সবটাই রাজ্যকে জানাব আমরা। এখন পরিস্থিতি অনেকটা ভাল। সোয়াব রিপোর্ট যথেষ্ট তাড়াতাড়ি আসছে। উল্লেখ্য, গত শনিবার কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল কালিম্পং পরিদর্শন করে৷ তবে রাজ্যের তরফে কোনও প্রতিনিধি না থাকায় কিছুটা সমস্যার মুখে তাদের পড়তে হয় তাদের। সেখানে পৌঁছে প্রথমে উত্তরবঙ্গের প্রথম করোনা আক্রান্ত মৃতার বাড়ির সামনে যান। সেখানকার পরিস্থিতি ঠিক আছে কিনা, তা খতিয়ে দেখেন প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দলের সদস্য ব্রিগেডিয়ার অজয় গাঙ্গোয়ার বলেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি। রাজ্যের তরফে আমাদের যে তথ্য দেওয়া হয়েছে, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here