মহানগর ওয়েবডেস্ক: করোনা কালে কাট-ছাঁট করেই ঘরোয়া ক্রিকেট শুরু করার ভাবনা বিসিসিআই-এর। এমনটাই সপ্তাহ তিনেক আগে মনে করা হয়েছিল।

২০২০-২০২১ মরসুম আগামী ১৯ নভেম্বর থেকে ১০ মার্চ পর্যন্ত চলবে। হাতে গুনে দু’টি টুর্নামেন্টে হবে এবার। সৈয়দ মুস্তাক আলি ও রঞ্জি ট্রফি আয়োজনের কথা ভেবেছে বোর্ড।

৫০ ওভারের এ সাইড টুর্নামেন্ট, বিজয় হাজারে ট্রফি, ইরানি ট্রফি, দলীপ ট্রফি, চ্যালেঞ্জার্স সিরিজ হবে না এবার।

রঞ্জি ট্রফি শুরু হবে ১৩ ডিসেম্বর থেকে। লিগ পর্যায়ে পাঁচ দলীয় খেলা হবে। প্লেট পর্যায় আটটি দল নিয়ে চারটি গরুপ হবে। ডজন নতুন দল থাকবে উত্তর ও পশ্চিম থেকে। প্রথম তিনটি গরুপ নকআউটে কোয়ালিফাই করবে। বাকি দুটি নকআউট কোয়ালিফায়ার জটিল পদ্ধতির মাধ্যমে নির্ধারিত হবে।

সাধারণত সেপ্টেম্বরের শেষ কিংবা অক্টোবরের শুরুতে ঘরোয়া মরশুম শুরু হয় ভারতে। কিন্তু এবার সেটা সম্ভব হচ্ছে না। আইপিএলের জন্যই ঘরোয়া ক্রিকেট শুরু হতে নভেম্বরের শেষ হয়ে যাচ্ছে। সময় অনেক কমে যাওয়ার জন্যই টুর্নামেন্টগুলি বাতিল করা ছাড়া উপায় থাকল না।

করোনার পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে খেলোয়াড়দের কতটা ট্রাভেল করে ম্যাচ খেলা সম্ভব সেটা নিয়েও ভেবেছে বিসিসিআই। সমস্যা রয়েছে ক্রিকেটারদের হোটেল পাওয়া নিয়েও। সব মাথায় রেখেই ফরম্যাট বদলের কথা ভাবল বোর্ড।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here