kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, হুগলি: ব‍্যবসায়ীর দোকানের সামনে পরিষেবা কেন্দ্র খুলে ‌দখলদারির অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে। প্রতিবাদ করায় মহিলা ব‍্যবসায়ীকে প্রকাশ‍্যে ধাক্কা মেরে ফেলে দিয়ে হেনস্থা করা হয় বলেও অভিযোগ। চুঁচুড়ার পিপুলপাতি মোড়ে এই ঘটনার জেরে থানায় বিজেপির বিরুদ্ধে মারধরের অভিযোগ দায়ের করেছেন মহিলা ব‍্যবসায়ী মিনতি দত্ত। ঘটনার কথা অস্বীকার করে বিজেপির দাবি,  ওই জায়গায় মালিকের থেকে অনুমতি নিয়েই করা হয়েছে পরিষেবা কেন্দ্র। শাসক দল এই ঘটনার জেরে বিজেপিকে তীব্র ধিক্কার জানিয়েছে।

চুঁচুড়ার পিপুলপাতি মোড়ে মিনতি দত্ত নামে এক মহিলার স্টেশনারি দ্রব‍্যাদি বিক্রয়ের দোকান আছে। সেই দোকানের সামনের অংশ দখল করে বিজেপি’র পরিষেবা কেন্দ্র খোলা হয় বেশ কয়েকমাস আগে। অভিযোগ, অনেকদিন ধরে বলার পরে সরিয়ে নেওয়া হয়নি পরিষেবা কেন্দ্রটি। ওই মহিলা ব‍্যবসায়ী বারংবার অনুরোধ করলেও কান দেয়নি বিজেপি। আজ দোকান খুলতে এলে বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে বচসা বাধে তাঁর।

অভিযোগ, ওই মহিলা ব‍্যবসায়ীকে ধাক্কা দিয়ে দোকান ঘরের সামনে থেকে সরিয়ে দেয় বিজেপি। সেই সঙ্গে তাঁকে হেনস্থাও করা হয়। পরিষেবা কেন্দ্রটি সরানো হবে না বলেও হুমকি দেওয়া হয়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে চুঁচুড়া থানার পুলিশ। পরিষেবা কেন্দ্রটি দ্রুত সরিয়ে নিতে নির্দেশ দেয়। মহিলা ব‍্যবসায়ী মিনতি দত্ত বলেন,  বিজেপি নেতা নিমাই দত্ত ও তার লোকেরা বলে দোকান খোলা যাবে না। এটা আপনার দোকান নয়, মালিককে ডাকুন। পুলিশের আশ্বাসে কিছুটা ভরসা পেয়েছি। জোর করে জীবিকা অর্জন করতে দিচ্ছে না।

অন‍্যদিকে, অভিযুক্ত বিজেপি নেতা নিমাই দত্ত বলেন, মহিলার অভিযোগ মিথ‍্যা। জায়গাটা ওনার নয়। আসল মালিকের থেকে অনুমতি নিয়েই আমরা পরিষেবা কেন্দ্রটি চালাচ্ছি। বিজেপি এই যুক্তিকে শাসক শিবির অবশ‍্য তীব্র কটাক্ষ করেছে। স্থানীয় বিধায়ক অসিত মজুমদার বলেন, বিজেপি সারা দেশে পুঁজিপতিদের দালালি করে আজ কৃষকদের পথে বসাতে চাইছে। যার যেটা অধিকার তাকে সেটা থেকে উৎখাত করতে চাইছে। চুঁচুড়ার ঘটনাটাও তাই। বিজেপি’র কাজ হচ্ছে সাধারণ মানুষকে বিপাকে ফেলা। প্রয়োজনে তৃণমূল কংগ্ৰেস ওই মহিলার পাশে দাঁড়াবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here