বিজেপির শাসনকাল দেশজুড়ে সংখ্যালঘুদের আতঙ্কিত করে তুলেছে, দাবি ওয়েইসির

0
1436
kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: বিজেপির প্রবল হিন্দুত্ববাদ নিয়ে প্রথম থেকেই সরব ছিলেন তিনি, এখন ‘জয় শ্রীরাম’ বা ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগান নিয়ে সংখ্যালঘুদের মারধরের বিষয় নিয়ে ব্যাপক আতঙ্কিত এআইএমআইএম প্রধান ও লোকসভার সাংসদ আসাউদ্দিন ওয়েইসি। তাঁর মতে, ‘জয় শ্রীরাম’ বা ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগান না বলতে চাওয়ায় দেশজুড়ে সংখ্য়ালঘুদের যেভাবে হেনস্থা করা হচ্ছে তাতে তিনি বেশ চিন্তিত একইসঙ্গে আতঙ্কিতও।

Read More – হিন্দু পুরুষদের উচিত মুসলিম মেয়েদের প্রকাশ্যে গণধর্ষণ করা! নিদান বিজেপি নেত্রীর

সম্প্রতি ঝাড়খণ্ডের ঘটনা প্রসঙ্গে সরব হয়ে ওয়েইসি অভিযোগ করেছেন,

গোটা দেশে যেভাবে মুসলিমদের ওপর অত্যাচার বাড়ছে তাতে তাঁরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। রাস্তায় বেরনোর আগে সংখ্যালঘুদের চিন্তা করতে হচ্ছে, তাদের ভয় লাগছে। বিজেপি বেছে বেছে সংখ্যালঘু এবং দলিতদের নিশানা করছে বলে মতপ্রকাশ করেছেন ওয়েইসি।

তাঁর কথায়,

হিন্দুত্ববাদী জিগির তুলে বিজেপি সঙ্গে সংঘ পরিবার মিলে এই কাজ করছে। পাশাপাশি তিনি আরও বলেন, বিজেপির রাজত্বকালে দেশের হাল এমনই হয়েছে যে, মুসলিম ঘরে শিশু জন্মালে বলা হয় দেশের জনসংখ্যা বাড়ছে, যে শিশুরা মাদ্রাসায় পড়তে যায় তাদের জঙ্গি বলা হচ্ছে। এমনকি মারা যাওয়ার পর কাউকে করব দিতে গেলেও বলা হচ্ছে যে জমি নষ্ট হচ্ছে!

বিজেপির শাসনকাল সংখ্যালঘুদের আতঙ্কিত করে তুলেছে বলে দাবি করেছেন ওয়েইসি।

Read More -নতুন মাস পড়তেই মধ্যবিত্তদের জন্য সুখবর! এক পলকে পতন ঘটল রান্নার গ্যাসের দামে

উল্লেখ্য, সম্প্রতি ঘটে যাওয়া দুটি ঘটনা নিয়ে তোলপাড় হয়েছে দেশ। এক, ঝাড়খণ্ডে ‘জয় শ্রীরাম’ বলতে বাধ্য করা মুসলিম যুবককে ব্যাপক মারধর এবং পরবর্তী সময়ে তার মৃত্যু এবং পশ্চিমবঙ্গের কলকাতায় ‘জয় শ্রীরাম’ না বলায় ট্রেন থেকে মুসলিম যুবককে ফেলে দেওয়ার ঘটনা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here