maharashtra minister

মহানগর ডেস্ক:   অনিল দেশমুখের বিরুদ্ধে মুম্বইয়ের প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার পরমবীর সিংয়ের অভিযোগের পর থেকে মহারাষ্ট্রের রাজ্য রাজনীতি উত্তপ্ত। বোম্বে হাইকোর্টের সিবিআই তদন্তের নির্দেশের পর অনিল দেশমুখ পদত্যাগ করেছেন। আগমী দুই মন্ত্রী ১৫ দিনের মধ্যে পদত্যাগ করবেন বলে বিজেপি নেতা চন্দ্রকান্ত পাতিল জানিয়েছেন। তিনি দাবি করেছেন, মহারাষ্ট্রে এরপর রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করতে হবে।

সম্প্রতি এনআইএয়ের হাতে গ্রেফতার হওয়ার মুম্বইয়ের প্রাক্তন পুলিশ আধিকারিক শচীন ওয়াজের একটি চিঠি প্রকাশ্যে এসেছে। সেই চিঠিতে শচীন ওয়াজে দাবি করেছেন, নিজের চাকরি টিকিয়ে রাখার জন্য তাঁর কাছ থেকে মহারাষ্ট্রের প্রাক্তন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অনিল দেশমুখ ২ কোটি টাকা ঘুষ চেয়েছিলেন। অন্য দিকে, অনিল পরব নামের অন্য এক মন্ত্রী কনট্র্যাক্টরের কাছ থেকে তোলা তোলার জন্য নির্দেশ দিয়েছিলেন। যদিও শিবসেনার মন্ত্রী অনিল পরব তাঁর বিরুদ্ধে আনা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেন। কারও নাম না করে পরব বলেন, কয়েকজন আদালতে অভিযোগ জানাবেন মন্ত্রীদের বিরুদ্ধে। আর বাধ্য হয়ে মন্ত্রীরা পদত্যাগ করবেন।

অন্য দিকে, পাতিল বলেন, অনিল দেশমুখের পাশাপাশি মহারাষ্ট্রের পরিবহণ মন্ত্রী অনিল পরবের বিরুদ্ধেও আদালতে অভিযোগ নিয়ে আসা হবে। এরপরেই রাষ্ট্রপতি শাসনের জন্য মহারাষ্ট্র উপযুক্ত হবে বলেও তিনি দাবি করেন। তবে বিজেপির তরফ থেকে এখনই এই ধরনের কোনও দাবি করা হয়নি বলেই জানা গিয়েছে। তিনি বলেন, যদি সব কিছুর জন্য রাজ্য কেন্দ্রকে দায়ী করে, তাহলে মহারাষ্ট্র সরকারের উচিৎ রাজ্যকে কেন্দ্রের হাতে তুলে দেওয়া।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here