‘দিদিকে বলো’র পাল্টা দিতে জনসংযোগে এবার ‘জনতার দরবার’ খুলছে বিজেপি

0
68

মহানগর ওয়েবডেস্ক: মানুষের কত কাছে কে আগে পৌঁছতে পারে তাই নিয়েই এখন ঠান্ডা লড়াই শুরু হয়েছে বিজেপি ও তৃণমূলের অন্দরে। একুশ সামলাতে প্রশান্ত কিশোরের পরামর্শে ‘দিদিকে বলো’ কর্মসুচী চালু করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বয়লার অপেক্ষা রাখে না রাজ্য জুড়ে এই কর্মসূচি এখন হিট। রাজ্যের নানান প্রান্ত থেকে একের পর এক অভিযোগ উঠে আসছে নবান্নের দরবারে। একইসঙ্গে দলীয় নেতাদের নিয়ে শুরু হয়েছে জনসংযোগ কর্মসূচি। এবার তৃণমূলের চালকে মাত করতে পাল্টা দিল বিজেপিও। অভিনব পদ্ধতিতে মানুষের সঙ্গে জনসংযোগের পন্থা বেছে নিল রাজ্য গেরুয়া শিবির।

বিজেপি সূত্রে জানা গেল, এখন থেকে রাজ্যে জয়ী বিজেপির ১৮ জন সাংসদ প্রতি মাসে একবার বা দু’বার নিজের লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্ভুক্ত বিধানসভাগুলিতে গিয়ে জনতার দরবার করবেন। শুধু তাই নয়, প্রত্যেক এলাকার বিজেপি কর্মীরা স্থানীয় মানুষের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে শুনবেন মানুষের অভাব অভিযোগ। এবং তাঁদের সমস্যা দূর করতে যথাসাধ্য চেষ্টাও করতে হবে নেতাদের। তবে বিজেপির এই কর্মসুচিতে তৃণমূলের জনসংযোগ কর্মসুচির গন্ধ পেতে শুরু করেছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। দাবি উঠছে এটা ‘দিদিকে বলো’র অন্য একটা ভার্সন। কিন্তু সেই অভিযোগ সপাটে খন্ডন করেছেন দিলীপ ঘোষ। তাঁর দাবি, জনতার দরবার আমরা আগেও করতাম। পরেও করব। এটা একজন বিধায়ক ও সাংসদের সামাজিক দায়িত্ব।’ পাশাপাশি, দিদিকে বলো কর্মসূচিকে কটাক্ষ করতেও ছাড়েননি দিলীপ। তাঁর দাবি, ওটার উদ্দেশ্য মানুষের সমস্যা দূরীকরণ নয়, নিজেদের ঢাক পিটিয়ে প্রচার।

প্রসঙ্গত, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘দিদিকে বলো’ কর্মসূচি যেভাবে রাজ্যে সাড়া ফেলেছে তাতে বেশ খানিকটা চাপে গেরুয়া শিবির। বিজেপি শিবিরে কান পাতলে শোনা যাচ্ছিল মমতাকে টক্কর দিতে দিদিকে বলোতে ফোন করে যারা সুরাহা পাননি তাঁদের খুঁজে বের করে পাল্টা প্রচারে নামবে বিজেপি। কিন্তু সেখানে বাদ সেধেছে সংগঠন। রাজ্যে অল্পদিনে মাথা চাড়া দিয়ে ওঠা বিজেপি এখনও গোটা রাজ্যজুড়ে নিজেদের সংগঠন শক্ত করে উঠতে পারেনি। ফলে ওই পরিকল্পনা মাথায় রেখেই দ্বিতীয় পথে হাঁটা শুরু করল বিজেপি। সেটা হতে চলেছে ‘জনতার দরবার’। তবে আপাতত সদস্য গ্রহণ অভিযানে নেমেছে বিজেপি। সেখান থেকে সদস্য বাড়িয়ে আরও বড় ভাবে আন্দোলন ও জনসংযোগের জন্য মাঠে নামছে দিলীপ বাহিনী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here