kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি: ‘টাকা লাগে দেবে গৌরী সেন’। অজানা উৎস থেকে টাকার জোগানের প্রসঙ্গ এলেই এই বহুল প্রচলিত প্রবাদবাক্যটি ব্যবহার করা হয়। এবার বস্তাবন্দি টাকা ছাড়ালেন গৌরী সেন! তবে সেই টাকা অক্ষত নয়, ছিল আধপোড়া। রবিবারে এই টাকা উদ্ধারকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে কালীঘাটে। বস্তাভর্তি এই পোড়া টাকা কোথা থেকে এল, তা জানার জন্য তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। তবে এই টাকাগুলি বাতিল হওয়া ৫০০ বা ১০০০ টাকার নোট নয়। সবগুলি চালু টাকা। নোটগুলি ছিল দশ থেকে একশো টাকার।

​পুলিশি সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিবার দুপুরে কালীঘাটের মুখার্জি ঘাটে ধোয়া দেখতে পাওয়া যায়। সেই ধোয়া দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজন সেখানে জড়ো হন। এরপর তারা সেখানে দেখতে পান পড়ে রয়েছে একটি আধপোড়া বস্তা। আর সেই বস্তার মধ্যে আছে বিভিন্ন অংকের নোট। দ্রুত এই খবর লোকমুখে ছড়িয়ে পড়ে। মুহূর্তের মধ্যে সেখানে জমে যায় ভিড়। খবর যায় পুলিশে। ​উৎসাহী জনগণ সেই বস্তা থেকে টাকা কুড়োনোর চেষ্টা করে। তবে সেখান থেকে অক্ষত কোনও টাকা উদ্ধার হয়নি।

​ঘটনার কথা জানতে পেরে সেখানে উপস্থিত হয় কালীঘাট থানার পুলিশ। পোড়া টাকাগুলি পুলিশ উদ্ধার করে। কারা এখানে বস্তাভর্তি টাকা এনে আগুন লাগিয়ে দিল, তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ। তবে স্থানীয়রা এবিষয়ে কিছুই জানাতে পারেননি। এলাকার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

​বছর তিনেক আগে নোট বাতিলের সময় এমন ঘটনা ঘটেছিল বেশ কয়েকটি। অনেকের কাছে থাকা বহু টাকার নোট ব্যাংকে জমা দিতে না পারায় সেই টাকা রাস্তায় ছড়িয়ে দেওয়ার ঘটনা ঘটে। ভাঙড়ের নিউটাউনে এরকম এক বস্তা টাকা উদ্ধার হয়েছিল। তবে সেই সব ঘটনায় অবাক হওয়ার তেমন কিছু ছিল না। কারণ সেগুলি ছিল শুধু বাতিল হয়ে যাওয়া টাকা। কিন্তু এদিনের ঘটনায় যথেষ্ট চাঞ্চল্য ছড়ায়। কারণ যে পোড়া টাকাগুলি উদ্ধার হয়েছে, তার সবগুলোই চালু টাকা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here