national news

Highlights

  • ভারতে বাড়ছে ক্যানসারের প্রকোপ
  • যার পরিমাণ প্রায় ৮১ শতাংশ
  • বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ‘হু’-এর রিপোর্টে উঠে এল চাঞ্চল্য়কর তথ্য

মহানগর ওয়েবডেস্কঃ ক্যানসার, মারণ রোগের নাম শুনলে এখনও আঁতকে ওঠে মানুষ। আজ আন্তর্জাতিক ক্যানসার দিবস। এদিনেই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ‘হু’-এর রিপোর্টে উঠে এল চাঞ্চল্য়কর তথ্য। সমীক্ষা বলছে আর্থিকভাবে অনুন্নত দেশগুলিতে ক্যানসারের প্রকোপ বাড়ছে হু হু করে। যার পরিমাণ প্রায় ৮১ শতাংশ। সেই তালিকায় রয়েছে আমাদের দেশও। ‘হু’-এর সমীক্ষা অনুযায়ী অন্তত ১০ জন ভারতবাসীর মধ্যে একজনের দেহে নিজের জাল বিস্তার করে ক্যানসার। এবং ১৫ জন ক্যানসারে আক্রান্ত ভারতবাসীর মধ্যে মৃত্যু হয় এক জন আক্রান্তের।

এই রিপোর্টে উঠে এসেছে বেশ কিছু তথ্য়। যেমন ছয় ধরণের ক্যানসার রয়েছে যাতে আক্রান্ত হয় বেশিরভাগ মানুষ। ব্রেস্ট ক্যানসার, ভারতে এর আক্রান্তের সংখ্যা ১ লক্ষ ৬২ হাজার ৫০০। ওরাল ক্যানসার, আক্রান্তের সংখ্যা ১ লক্ষ ২০ হাজার। সার্ভিক্যাল ক্যান্সার, আক্রান্তের সংখ্যা ৯৭ হাজার। লাং ক্যানসার, আক্রান্তের সংখ্যা ৬৮ হাজার। প্রায় ৫৭ হাজার মানুষ আক্রান্ত হয় স্টমাক ক্যানসারে। এছাড়াও রয়েছে করোরেকটাল ক্যান্সার, যাতে প্রায় ৫৭ হাজার মানুষ আক্রান্ত হয়।

এছাড়াও আছে অত্যাধিক মাত্রায় তামাক সেবনের ফলে হওয়া ক্যানসার। যাতে বেশিরভাগ আক্রান্ত হয় পুরুষরাই- এমনটাই বলছে সমীক্ষা। সিগারেট, বিড়ি, গুটখা, খৈনি সহ যাবতীয় তামাকজাত নেশার কারণে ক্যানসারের ঝুঁকি বেড়েছে অন্তত ২২ শতাংশ। রিপোর্ট বলছে, এই তামাকজাত নেশার কারণে ২০৪০ সালের মধ্যে ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়তে পারে অন্তত ৬০ শতাংশ।

ক্যানসার বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, ক্যানসার কোনও একটি নির্দিষ্ট কারণে হয় না। তবে নানা সমীক্ষায় উঠে এসেছে শরীরের বাড়তি মেদ অনেকখানি বাড়িয়ে দেয় ক্যানসারের এই ঝুঁকি। অতিরিক্ত পরিমাণে ফাস্টফুট, প্রিজারভ ফুড, অতিরিক্ত ময়দা, চিনি এগুলি ক্যানসারের দিকে এগিয়ে নিয়ে যায় শরীরকে। ওজন বাড়লে শরীরে এত রকম জটিলতা শুরু হয় যে শরীর থেকে অসুখ সরানো মুশকিল হয়ে পড়ে রীতিমত। সেখানে শরীরচর্চা করার দিকে জোর দিচ্ছেন চিকিত্সকেরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here