kolkata news
Parul

 

ads

নিজস্ব প্রতিনিধি: সেলের কাঁচামাল সরবরাহ বিভাগের সদর দফতর কলকাতা থেকে যাতে না সরানো হয়, তার জন্য কেন্দ্রীয় ইস্পাতমন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধানকে ফের চিঠি লিখলেন রাজ্যের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র। চিঠিতে অর্থমন্ত্রী উল্লেখ করেছেন, করোনা পরিস্থিতিতে আরএমডি–র অস্থায়ী ও চুক্তিভিত্তিক কর্মীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়বে। শুধু তাই নয়, স্থায়ী কর্মীরাও এই পরিস্থিতিতে অন্য জায়গায় কাজ করতে গিয়ে অসুবিধায় পড়বেন। কলকাতা থেকে অন্য কোথাও যেতে হলে তাঁদের পারিবারিক জীবন নিয়ে সমস্যা হবে।

একইসঙ্গে স্থায়ী কর্মীদের চাকরির ভবিষ্যৎ নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন অর্থমন্ত্রী। তিনি চিঠিতে লিখেছেন, ইতিমধ্যে দফতরের কর্মীদের পক্ষ থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির কাছে সমস্যার কথা জানানো হয়েছে। আরএমডি–র সদর দফতর কলকাতা থেকে সরানোর সিদ্ধান্ত বাতিল করা হোক।

এদিনের চিঠিতে অর্থমন্ত্রী অভিযোগ করেছেন, বিজেপি সরকার কেন্দ্রে ক্ষমতায় আসার পর থেকে অভিসন্ধিমূলক সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। তারা কলকাতা থেকে বিভিন্ন রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার সদর দফতর সরিয়ে নিয়েছে। তিনি চিঠিতে আরও লিখেছেন, ইতিমধ্যে এইচএসসিএল, কোল ইন্ডিয়ার বিভিন্ন শাখা, এসবিআই–এর সেন্ট্রাল অ্যাকাউন্টস, ইউবিআই–এর সদর দফতর কলকাতা থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। ভবিষ্যতে টি বোর্ড, ডিভিসি, ন্যাশনাল ইন্সিওরেন্স কোম্পানির সদর দফতর এখান থেকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা করা হচ্ছে। এমনকী ক্যালকাটা স্টক এক্সচেঞ্জ বন্ধ করে দেওয়ার ভাবনা চিন্তা করা হচ্ছে। কেন্দ্রীয় ইস্পাত মন্ত্রীকে তিনি জানিয়েছেন, আরএমডির সদর দফতরের সঙ্গে পূর্ব উল্লিখিত চারটি সংস্থার সদর দফতরও যাতে না সরানো হয় তা নিশ্চিত করতে হবে কেন্দ্রকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here