ডেস্ক: কাশ্মীরের পুলওয়ামায় হামলার পর থেকে জম্মু কাশ্মীরের বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতাদের থেকে নিরাপত্তারক্ষী তুলে নেওয়া হয়েছিল। ফেব্রুয়ারি মাসে উপত্যকার বিচ্ছিন্নতাবাদি নেতা ইয়াসিন মালিককে গ্রেফতার করে পুলিশ। এবার তাঁর দল জম্মু কাশ্মীর লিবারেশন ফ্রন্ট(JKLF)-কে নিষিদ্ধ ঘোষণা করল কেন্দ্রীয় সরকার।

কেন্দ্রীয় সরকারের এহেন সিদ্ধান্তের ফলে যে উপত্যকার বিচ্ছিন্নতাবাদীদের রাতের ঘুম কেড়ে নিয়েছে তা নিঃসন্দেহে বলাই চলে। সন্ত্রাস দমন আইনের আওতায় শুক্রবার সংগঠনটিকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রসচিব রাজীব গৌবা জানিয়েছেন যে, দীর্ঘদিন ধরে জম্মু-কাশ্মীরে সন্ত্রাসবাদী কার্যাকলাপে মদত দিচ্ছিল ইয়াসিনের এই সংগঠন। ফলে বেআইনি কার্যাকলাপ প্রতিরোধ আইন বিভিন্ন ধারা অনুযায়ী তাঁর সংগঠনকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

 

১৪ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের পুলওয়ামায় সিআরপিএফ সেনা কনভয়ে হামলার পর থেকে উপত্যকার বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে শুরু করেছে কেন্দ্র। একে একে বিভিন্ন বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতাদের জেলবন্দি করা হয়। এছাড়া বহু নেতাকে গৃহবন্দি অবধি করে রাখা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। হামলার পর থেকে এই নিয়ে দুটি সংগঠনকে নিষিদ্ধ করল কেন্দ্র। এর আগে জামাত গোষ্ঠীকে ব্যান করে দেওয়া হয়। বর্তমানে ইয়াসিন জম্মুর কোট বলওয়াল জেলে বন্দি রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here