Home Featured ‘স্বাধীনতার ৭৫ বছর পরেও রাষ্ট্রদ্রোহ আইনের কী প্রয়োজন? উত্তর দিন’, কেন্দ্রকে প্রশ্ন ভারতের প্রধান বিচারপতির

‘স্বাধীনতার ৭৫ বছর পরেও রাষ্ট্রদ্রোহ আইনের কী প্রয়োজন? উত্তর দিন’, কেন্দ্রকে প্রশ্ন ভারতের প্রধান বিচারপতির

0
‘স্বাধীনতার ৭৫ বছর পরেও রাষ্ট্রদ্রোহ আইনের কী প্রয়োজন? উত্তর দিন’, কেন্দ্রকে প্রশ্ন ভারতের প্রধান বিচারপতির
Parul

মহানগর ডেস্ক: রাষ্ট্রদ্রোহ আইন নিয়ে বিরক্তি প্রকাশ করলেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি। ভারতের প্রধান বিচারপতির এনভি রমনের জিজ্ঞাসা, ‘মহাত্মা গান্ধীজীর মুখ বন্ধ রাখার জন্য এক সময় এই আইন ব্যবহার করতেন ব্রিটিশরা। দেশ স্বাধীন হওয়ার ৭৫ বছর পরেও এই আইনের কী দরকার?’

সম্প্রতি ‘দেশদ্রোহী’, ‘দেশ বিরোধী’ ইত্যাদি কিছু শব্দ বহু আলোচ্য। এ ব্যাপারে একাধিক মামলা দায়ের হয়েছে আদালতে। বৃহস্পতিবার সেই বিষয়ে চলছিল শুনানি। কেন্দ্র যাদের স্পষ্ট করে নিজের উত্তর দেয় সে নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি। স্বাধীন ভারতের রাষ্ট্রদ্রোহ আইনের প্রয়োজনীয়তা তা তিনি জানতে চেয়েছেন।

‘এই আইনকে (১২৪-এ) নিজেদের হাতে তুলে দেওয়া এবং একজন কাঠ-মিস্ত্রির হাতে করা তুলে দেওয়া দুটো প্রায় একই জিনিস। কাঠমিস্ত্রি করাত দিয়ে সনপূর্ণ গাছকেই কেটে দিতে পারেন। এই আইনের অপব্যবহার সমান ভয়ঙ্কর।’ তিনি আরও বলেছেন, ‘এই আইনের অপব্যবহার আমাদের চিন্তার অন্যতম কারণ।’

এই আইনের বিরুদ্ধে আবেদন করেছেন ভারতের প্রাক্তন এক সেনা কর্মী। রিটায়ার্ড মেজর জেনারেল এসজি ভোমবাটকেরে তাঁর আবেদনে ‘ভয় ধরানো’র মতো শব্দ ব্যবহার করেছেন। রাষ্ট্রদ্রোহ আইন স্বাধীন ভারতে অপ্রয়োজনীয় এবং মত প্রকাশের ক্ষেত্রে এক বাধা বলে তিনি মনে করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here