চিনে ইমরান, ভারত-পাক দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় কাশ্মীর সমস্যা মিটুক, চায় বেজিং

0
460
kolkata bengali desk

মহানগর ওয়েবডেস্ক: কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা বাতিলের পর আন্তর্জাতিক মঞ্চে নানা ভাবে ভারতকে কোণঠাসা করার চেষ্টা করে পাকিস্তান৷ এব্যাপারে চিনকে তারা পাশে পেয়েছিল৷ এদিকে ভারতে সফরে আসছেন চিনের প্রেসিডেন্ট শিং জিনপিং৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে তাঁর ঘরোয়া বৈঠক হবে৷ তার আগেই চিনে দরবার করলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান৷ মঙ্গলবার চিনে পৌঁছন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী। বেজিংয়ে চিনের প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াংয়ের সঙ্গে তাঁর বৈঠক হয়৷ রাষ্ট্রসংঘে সাম্প্রতিক রেফারেন্সকে ভুলে চিন বলেছে, দ্বিপাক্ষিক আলোচনার মাধ্যমে কাশ্মীর সমস্যার সমাধান করা উচিত দিল্লি ও ইসলামাবাদের।

চিনের বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র গেং শুয়াং জিনপিংয়ের ভারত সফর সম্পর্কে বলেছেন, ভারত ও চিনের মধ্যে উচ্চ পর্যায়ের আদান-প্রদানের ঐতিহ্য রয়েছে। উচ্চ পর্যায়ের সফরের আগে দুই দেশের মধ্যে কথাবার্তা হয়েছে। মোদীর সঙ্গে বৈঠকে কাশ্মীর প্রসঙ্গ উঠে আসবে কি না, এই প্রশ্নের জবাবে শুয়াং বলেন, চিনের অবস্থান এটাই যে কাশ্মীর সমস্যার সমাধান হওয়া উচিত ভারত ও পাকিস্তান দ্বিপাক্ষিক আলোচনার মাধ্যমে। শুয়াং আরও বলেন, আমরা ভারত ও পাকিস্তানকে বলেছি, কাশ্মীর-সহ সব বিষয়ে আলোচনার প্রক্রিয়া চালাতে ও পারস্পরিক সমঝোতা করতে। দুই দেশ ও সাধারণ আন্তর্তাজিক স্বার্থেই সেটা প্রয়োজন৷

এ দিকে, চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সঙ্গে দ্বিতীয় ঘরোয়া বৈঠকে মিলিত হতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সরকারের তরফে ঘোষণা করা হয়েছে, ১১ ও ১২ অক্টোবর অর্থাত্‍‌ বৃহস্পতি ও শুক্রবার চেন্নাইয়ে তাঁরা বৈঠক করবেন। গত বছর এপ্রিলে ইউহান সম্মেলনের পর ফের ইনফরম্যাল বৈঠকে মিলিত হবেন এই দুই নেতা। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর এই নিয়ে তৃতীয়বার ইমরান চিনে গেলেন৷ তবে এই মুহূর্তে কাশ্মীর নিয়ে ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা তুঙ্গে৷ তার ওপর আবার শি-র সঙ্গে মোদীর বৈঠক৷ এই আবহে ইমরানের চিন সফর তাত্পর্যপূর্ণ৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here