claire-polosak

মহানগর ওয়েবডেস্ক: ফুটবল মাঠে অনেকদিন আগেই হয়েছে। ছেলেদের খেলায় ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব সামলেছেন কোনও এক মহিলা। এই দৃশ্য দেখা গিয়েছে কলকাতা ময়দানেও। কিন্তু পৃথিবীর অন্যতম জনপ্রিয় খেলা ক্রিকেটে এই প্রথা এতদিন ব্রাত্যই ছিল।

কিন্তু অবশেষে এই ‘বাধাও’ ভেঙে দিতে চলেছে আইসিসি। শনিবার এক ঐতিহাসিক সিদ্ধান্ত নিল আইসিসি। ছেলেদের আন্তর্জাতিক একদিনের ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব এই প্রথম পালন করতে চলেছেন এক মহিলা আম্পায়ার। ক্লেয়ার পোলোসাক ওমান বনাম নামিবিয়া ম্যাচে আম্পায়ারের দায়িত্ব সামলাবেন।

এই খবর পাওয়ার পরেই উচ্ছ্বসিত ক্লেয়ার।

‘প্রথম মহিলা হিসেবে পুরুষদের ওয়ানডে ম্যাচে আম্পায়ারিং করার দায়িত্ব পেয়ে আমি খুব খুশি। আমি মনে করি মহিলা আম্পায়ারদের বিকাশে এই পদক্ষেপ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ আর মহিলাদের আম্পায়ারিং না করার কোনও কারণ তো দেখছি না। এখন সময় হয়েছে কিছু প্রাচীর ভেঙে ফেলার। তাহলে আরও মহিলা আম্পায়ার হতে এগিয়ে আসবে’, বলেন তিনি।

তিনি আরও যোগ করেন, ‘আম্পায়ারিং একটা দলগত দায়িত্ব। এতদিন যে সকল আম্পায়াদের সঙ্গে আমি মাঠে ম্যাচ পরিচালনা করেছি, তাদের সকলে আমি ধন্যবাদ জানাতে চাই। এছাড়া ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া ও আমার পরিবারের লোকেদের কাছেও আমি কৃতজ্ঞ। তাদের সাহায্য ছাড়া এতদূর আসা আমার পক্ষে সম্ভব ছিল না।’

প্রসঙ্গত, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এই প্রথম হলেও ঘরোয়া ম্যাচে এর আগেও পুরুষদের খেলা পরিচালনা করেছেন ক্লেয়ার। ২০১৭ সালে প্রথম মহিলা হিসেবে অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া ক্রিকেটেও আম্পায়ারিং করেছিলেন তিনি। এছাড়া গত বছর ডিসেম্বর মাসে মহিলাদের বিগ ব্যাশে তিনি ও এলোইস শেরিডান প্রথম মহিলা আম্পায়ার জুটি হিসেবে কোনও ম্যাচ পরিচালনা করেছিলেন। এখনও পর্যন্ত মোট ১৫টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে আম্পায়ারের দায়িত্ব সামলেছেন ৩১ বছর বয়সী এই অস্ট্রেলিয়ান। গতবছর মহিলাদের টি-২০ বিশ্বকাপ ফাইনাল ম্যাচও পরিচালনা করেছিলেন ক্লেয়ার পোলোসাক।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here