আমি আলোচনার মাধ্যমে সমালোচনা গ্রহণ করি, কার্নিভাল কাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্য

0
kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক:রাজ্যপালের সঙ্গে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সহ শাসকদলের ঝামেলা বাংলায় নতুন কিছু নয়৷ এর আগে বেশ কয়েকবার হয়েছে৷১৯৬৭ সালে রাজ্যপাল ধরমবীরের সঙ্গে যুক্তফ্রন্টের শরিক বামফ্রন্টের ঝামেলা ইতিহাস হয়ে গিয়েছে৷ বর্তমান রাজ্যপাল ধনকড় শুরু থেকেই বুঝিয়ে দিয়েছেন আর পাঁচটা রাজ্যপালের মতো তিনি নন৷ দুর্গাপুজোর কার্নিভ্যালে তাঁকে ডেকে নিয়ে অপমান করা হয়েছে৷ সাংবাদিকদের এমনটাই মমতা সরকার সম্পর্কে অভিযোগ করেছেন এককালের বিজেপির কেন্দ্রীয় মন্ত্রী , এখনকার বাংলার রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়৷তবে তাঁর নালিশকে খুব একটা পাত্তা দিলেন না মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ কারো নাম না করে মুখ্যমন্ত্রী শুধু বলেন, আমি খুব ইতিবাচক৷ নেতিবাচক কোনো কিছুকে আমি বিশ্বাস করি না৷ পাশপাশি তিন স্পষ্ট জানান, আমি সমালোচনা খোলা মনে গ্রহণ করি৷ তবে তা আলোচনার মদ্যে দিয়ে হতে হবে৷ রাজ্যপালের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধানের ইঙ্গিত এদিন দিলেন মুখ্যমন্ত্রী৷

বৃহস্পতিবার বিশ্ববাংলা শারদ সম্মান অনুষ্ঠানে নবান্ন সভাঘরে এ দিন মুখ্যমন্ত্রী দুর্গাপুজো নিয়ে উচ্ছ্বসিত মমতা বন্দোপাধ্যায়৷ তিনি মনে করেন এবার দুর্গাপুজো খুব ভাল হয়েছে৷ আগামী বছরের পুজোর প্রস্তুতি এখন থেকেই শুরু করার নির্দেশ দিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর কথায়, ‘সামনের বার আরও ভাল ভাবে কী করে করা যায় ভাবতে শুরু করুন।’ ছোটো পুজো নিয়ে এদিন তাঁর মুখে অকুন্ঠ প্রশংসা শোনা গেল৷ তাঁর কথায়, ‘দেখবেন গিয়ে বাটাম ক্লাবের পুজো। কী সুন্দর করে ওরা। কোলাহল ক্লাবও তাই। বিউটিফুল করে। বড় ক্লাবের থেকে কম যায় না। ছোট ক্লাব বলে দেখব না এটা হয় না। ‘এ’-র চোখ দিয়ে ‘এ’-কে দেখতে হবে, ‘বি’-র চোখ দিয়ে ‘বি’কে। ‘সি’-র চোখ দিয়ে ‘ডি’কে দেখলে হবে না আবার ‘ডি’-র চোখ দিয়ে ‘এফ’কে দেখলে হবে না।’

মুখ্যমন্ত্রী সাফ জানান,‘ইউনেসকো এই কার্নিভালকে স্বীকৃতি দিয়েছে। একদিন সারা পৃথিবী বলবে  বিশ্বের শ্রেষ্ঠ উৎসব দুর্গাপুজো। আমি মায়ের কাছে একটাই প্রার্থনা করি, মাগো তুমি একটু করে এগিয়ে দাও।’ তাঁর কথায়, চার বছর ধরে আমরা দুর্গাপুজো ভাসান উপলক্ষে দুর্দান্ত কার্নিভাল করি৷ বিশ্ব আমাদের এই উৎসবের প্রশংসা করে৷ আমি সব পুজো কমিটিকে বলব এখন থেকেই পরের বছরে পুজো কীবাবে আরো সুন্দর করে করা যায় তার পরিকল্পনা করুন৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here