vijan bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: মারণ ভাইরাস করোনাকে রুখে দিতে কোমর বেঁধে নেমেছে সব কটি রাজ্য সরকার। প্রত্যেকেই নিজের নিজের মতো ব্যবস্থা নিচ্ছে। তবে কেরল বরাবরের মতোই বাকিদের থেকে অনেকটাই এগিয়ে। করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় ২০,০০০ কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করেছেন কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ম। বৃহস্পতিবার এই প্যাকেজের কথা জানান তিনি। কোনও ভাবেই যাতে এই ভাইরাস বেশি সংক্রামিত না হয় সেই বন্দোবস্ত করতে সর্বস্ব সঁপে দিয়েছে কেরল সরকার।

ইতিমধ্যেই কেরলে ২৫ জনের শরীরে এই ভাইরাস ছড়িয়েছে। প্রত্যেকের সঙ্গেই কোনও না কোনও ভাবে বিদেশ যোগ রয়েছে। কমিউনিটি ট্রান্সমিশন হয়নি। তা সত্ত্বেও যে কোনও ধরনের পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত থাকতে এই বিরাট অংকের প্যাকেজ ঘোষণা করেছে কের। এই আর্থিক প্যাকেজে ৫০০ কোটির স্বাস্থ্য প্যাকেজ এবং ২,০০০ কোটি লোন ও রেশনের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে। ২৫ জন পজিটিভ রোগী ছাড়াও আক্রান্ত সন্দেহে ৬৫ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়াও পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে ৩১,১৭৩ জনকে। যাদের মধ্যে ২৩৭ জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

প্যাকেজের কথা ঘোষণা করে বিজয়ন বলেন, আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল যেসব পরিবারের প্রয়োজন হবে তাদের জন্য এই ২০০০ কোটি টাকা খরচ করা হবে। এপ্রিল-মে মাসের মধ্যে গ্রামোন্নয়নের পিছনে ১,০০০ কোটি টাকা খরচ কর হবে বলে জানান তিনি। এছাড়াও বিপর্যয়ের এই সময়ে সামাজিক সুরক্ষার খাতে ১,৩২০ কোটি টাকা ৫০ লক্ষ সাধারণ মানুষের মধ্যে বিলি করা হবে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী বিজয়ন। যারা বিপিএল আওতাভুক্ত তাদওঁর মাসে ১০০০ টাকা দেওয়ারও প্রতিশ্রুতি দেন কেরল মুখ্যমন্ত্রী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here