kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, হাওড়া: প্রতিবেশীদের হুমকির জেরে ডিউটিতে যেতে পারছেন না আয়ার কাজে যুক্ত দুই মহিলা। ঘটনাটি হাওড়ার লিলুয়ার। শুধু হুমকিই নয়, প্রতিবেশীদের বিরুদ্ধে ওই দি মহিলাকে হেনস্থার অভিযোগও উঠেছে। তাদের শাসানো হয়েছে। বলা হয়েছে, করোনা পরিস্থিতিতে যখন লকডাউন চলছে, তখন আয়ার ডিউটিতে বের হলে আর পাড়ায় ঢুকতে দেওয়া হবে না। এই ঘটনায় ওই দুই মহিলা রীতিমতো আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন।

গরিব পরিবারে সংসার চালাতে আয়ার কাজই একমাত্র সম্বল। কাজে না বের হলে সংসার চলবে না। অভিযোগ, কাজে বের হলেই প্রতিবেশীদের হুমকি জুটছে তাদের কপালে। হাওড়ার লিলুয়ার বাসিন্দা ওই দুই মহিলাকে এমনই হেনস্থার অভিযোগ উঠেছে প্রতিবেশীদের বিরুদ্ধে। ওই দুই মহিলার মধ্যে একজনের বাড়িতে প্রতিবন্ধী কন্যাসন্তান রয়েছে। আর  এক জনের স্বামী মারা গিয়েছেন। পেট চালাতে তাদের আয়ার কাজ করতে হয়। কাজে না বের হলে প্রতিবন্ধী সন্তানের ওষুধের খরচই কোথা থেকে আসবে বা স্বামীর মৃত্যুর পর সংসারই চলবে কীভাবে। চিন্তায় পড়ে গিয়েছেন ওই দুই মহিলা। বিষয়টি জানানো হয়েছে স্থানীয় লিলুয়া থানায়। অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে। এই ঘটনায় পারিবারিক কোনও বিবাদ জড়িয়ে রয়েছে কিনা, তাও পুলিশ খতিয়ে দেখছে।

উল্লেখ্য, করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে চিকিৎসক ও নার্সদের সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটেছে বেশ কয়েকটি। কয়েকদিন আগে নদিয়ায় এক নার্সকে তার বাড়িতে ঢুকতে দেয়নি প্রতিবেশীরা। আবার একটি আবাসনে এক চিকিৎসককে ঢুকতে বাধা দেওয়া হয় অন্য আবাসিকদের তরফে। সবার ধারণা, এ ভাবে ছড়িয়ে পড়বে করোনা। বিষয়গুলি নিয়ে সরব হন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি জানান, চিকিৎসার সঙ্গে যুক্ত কোনও মানুষকে এভাবে হেনস্থা করা যাবে না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here