kolkata news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: করোনা আতঙ্ক ক্রমশ গ্রাস করছে গোটা বিশ্বকে। একে একে এর কবলে পড়ছেন বিশ্বের নানা প্রান্তের অগণিত মানুষ। ভারতেও নিজের ত্রাস বিস্তার করছে এই মারণ ভাইরাস। শেষ পাওয়া খবরে, ভারতে এখন পর্যন্ত ৬০ জনের শরীরে এই ভাইরাসের খোঁজ মিলেছে। একই সঙ্গে গতকালই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) একে মহামারী হিসেবে ঘোষণা করে উদ্বেগ বাড়িয়েছে। অন্যদিকে, ভারতের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে গতকালই আগামী এক মাসের জন্য সমস্ত ট্যুরিস্ট ভিসা বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার।

সূত্রের খবর, আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত ভারতের সমস্ত ট্যুরিস্ট ভিসা বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। গতকাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) COVID-19-কে ‘প্যান্ডেমিক’ তকমা দেয়। কোনও রোগ সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়লে তাকে ‘প্যান্ডেমিক’ বলা হয়৷ কোনও রোগ ছড়িয়ে পড়লে, তিনটি পর্যায়ে তাকে ভাগ করে হু৷ প্রথমে আউটব্রেক, অর্থাত্‍ রোগটি ছড়াচ্ছে৷ এপিডেমিক, অর্থাত্‍ মহামারী৷ এপিডেমিক কোনও নির্দিষ্ট অঞ্চ বা দেশেও হতে পারে৷ কিন্তু যখন তামাম দুনিয়ায় ছড়িয়ে যায় সেই রোগ, তখন তা প্যান্ডেমিক অর্থাত্‍ আন্তর্জাতিক মহামারী৷

বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান টেড্রোস অ্যাডানম ঘেব্রেসাস বলেছেন, বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা এই রোগের বিস্তার ও তীব্রতা নিয়ে উদ্বিগ্ন। পাশাপাশি তিনি উদ্বিগ্ন আশঙ্কাজনক সংক্রমণ নিয়েও। সেই কারণে এই ভাইরাসকে মহামারী হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। এই ভাইরাসের প্রকোপে একটা গোটা মানব সভ্যতাও ধ্বংস হয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এই ঘোষণার কিছুক্ষণ আগেই করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে ব্রিটেন এবং ইতালি। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে কয়েক লক্ষ কোটি টাকা বরাদ্দের কথা ঘোষণা করেছে এই দুই দেশ। অন্যদিকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রও নয়া পদক্ষেপের বিষয়ে চিন্তাভাবনা শুরু করে দিয়েছে।

তবে এই ভাইরাস সবথেকে মারাত্মক প্রভাব ফেলেছে নানা দেশের অর্থনীতির উপর। একাধিক দেশের অর্থনীতি এর জেরে ক্ষতির মুখ দেখছে। আন্তর্জাতিক বাজারের অবস্থা আরও তথৈবচ। ফলে এর শেষ কোথায় তা নিয়ে গভীর চিন্তায় রয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here