delhi gunman

মহানগর ওয়েবডেস্ক: দিল্লি দাঙ্গার যে কয়েকটি ছবি গণমাধ্যমে দাবানলের গতিতে ভাইরাল হয়েছে তার মধ্যে অন্যতম শাহরুখের বন্দুক হাতে ধরা সেই ছবি। দীর্ঘ কয়েকদিন গা ঢাকা দিয়ে থাকার পর অবশেষে শাহরুখ পাঠান নামের ওই ২৩ বছরের যুবককে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে দিল্লি পুলিশ। সূত্রের খবর, তাকে হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। প্রাথমিক তদন্তে যেটুকু উঠে এসেছে তাতে জানা গিয়েছে, রাগের মাথাতেই সে পুলিশ কর্মীর দিকে বন্দুক তাক করে গুলি চালিয়েছিল। শাহরুখ পুলিশকে জানিয়েছে, ‘আমি এত রেগে গিয়েছিলাম যে গুলি চালাতে শুরু করি। এটা পুরোপুরি তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া ছিল।’

এদিন শাহরুখকে উত্তরপ্রদেশের শামলীর বাস স্ট্যান্ড থেকে গ্রেফতার করেছে দিল্লি পুলিশেক ক্রাইম ব্রাঞ্চ। গ্রেফতারের পর পুলিশ জানিয়েছে, ২৪ ফেব্রুয়রির ওই ঘটনার পর কয়েকদিন দিল্লিতেই ছিল শাহরুখ। তারপর পঞ্জাব পালিয়ে গিয়ে এক বন্ধুর বাড়িতে আশ্রয় নেয়। পঞ্জাবের বেরেইলি থেকে পালিয়ে উত্তরপ্রদেশের শামলীতেও এক বন্ধুর বাড়িতেই আশ্রিত ছিল সে। কিন্তু খোচর কাজে লাগিয়ে বন্দুকবাজকে খুঁজে বের করে পুলিশ।

দিল্লি পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চের এসিপি অজিত কুমার সিংলা এই প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, ‘আমরা খতিয়ে দেখব শাহরুখ যে দাবিগুলো করেছে তার সত্যতা কতটা। বছর দুয়েক আগে ও এক বন্ধুর কাছ থেকে সেমি অটোমেটিক পিস্তল জোগাড় করেছিল। যখন আমরা জিজ্ঞেস করি কেন ও বন্দুক নিয়েছিল উত্তরে ও জানায়, শুধু দেখানোর জন্যই কাছে রেখেছিল ওটা।’

শাহরুখ পাঠান সম্পর্কে পুলিশ আরও জানিয়েছে, সে সেকেন্ড ইয়ারেই কলেজ ত্যাগ করেছিল। ব্যায়মের ক্ষেত্রে বিশেষ আগ্রহ ছিল তার। টিকটিকের মতো সোশ্যাল মিডিয়ায় তার বহু জিমের করার ভিডিয়ো সে পোস্ট করেছিল। শাহরুখ অতীতে এই ধরনের কোনও অপরাধীমূলক কাজের সঙ্গে জড়িত ছিল এমন কোনও তথ্যও নেই বলেই জানিয়েছে পুলিশ। তবে গা ঢাকা দেওয়ার পিছনে শাহরুখের বাবার কোনও মদত ছিল কিনা সেটা নিয়েও তদন্ত করা হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে পুলিশ সূত্রে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here