kolkata bengali news

ডেস্ক: বেসামাল মন্তব্যের জন্য বাংলার বেশ কিছু নেতাকে নিজেদের রেডারে রেখেছে নির্বাচন কমিশন। ভাষা ব্যবহারে সীমা লঙ্ঘন করে যাওয়ায় বীরভূম জেলা সভাপতির নামে ইতিমধ্যেই নোটিশ নালিশ ঠোকা হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের কাছে। এবার নির্বাচন কমিশনের নিশানায় অধীর চৌধুরী। মুর্শিদাবাদের কান্দির সভায় তাঁর বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে এবার জেলার নির্বাচনী অফিসারের কাছে রিপোর্ট তলব করল কমিশন।

সূত্রের খবর, অধীরের বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে বৃহস্পতিবার ইলেক্টোরাল অফিসারের কাছে এই রিপোর্ট তলব করেছে কমিশন। এই সভায় নাম না করে অনুব্রত মণ্ডলকেই কটাক্ষ করেছিলেন অধীর। তিনি বলেন, ‘বীরভূমের এক পালোয়ান বলছে আমাদের পাঁচন দেবে। আমি বলছি, পুলিশ বাবাকে সরিয়ে একবার সামনে আয় আমি তোকে পাঁচনের নাচন দেখাব। এত বাহাদুরি হলে সামনে পিছনে পুলিশ কেন। মেয়েদের হাতে যাতে মার না খেতে হয় তার জন্য চারটে মেয়ে পুলিশও রেখেছে।’

অধীরের পাঁচনের নাচন মন্তব্যের মতলব জানতে চেয়েই এই রিপোর্ট তলব করেছে কমিশন। বুধবারের এই সভায় অধীর আরও বলেন, ‘হাটে গেছিলাম। এক জায়াগায় খুব ভিড় করে লোকজন বকরি কিনছিল। আমি জিজ্ঞেস করলাম, এত ভিড় কেন? বলল, সস্তায় চাইনিজ বকরি দিচ্ছে। আমি বললাম, চাইনিজ বকরিতে কী হয়? ওরা বলল, এরা খাবে দাবে নেবে আর পালাবে। আমাদেরও অনেক চাইনিজ বকরি তৃণমূলে চলে গেছে।’

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here