ডেস্ক: সরকারের চাপের মুখে পড়ে প্রবেশিকা পরীক্ষা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিল যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এই রীতি তুলে নেওয়ার পরেই বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে পড়ুয়ারা বিক্ষোভ শুরু করেছে। তাঁদের দাবি, প্রবেশিকার মাধ্যমেই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি নিতে হবে। সম্প্রতি কলা বিভাগে প্রবেশিকার বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে, বাংলা, ইংরেজি, তুলনামূলক সাহিত্য, ইতিহাস, দর্শন ও রাষ্ট্রবিজ্ঞানে স্নাতকস্তরে ভর্তির ক্ষেত্রে এবার প্রবেশিকা হবে। ভর্তিতে যার গুরুত্ব থাকবে ৫০ শতাংশ। বাকি ৫০ শতাংশ উচ্চমাধ্যমিক বা সমতুল্য বোর্ডের নম্বর অনুযায়ী হিসেব হবে। দুটোর গড় করে তৈরি হবে মেধা তালিকা। কিন্তু বুধবার বিকেলের দিকে সাংবাদিক বৈঠক করে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয় যে, কলা বিভাগের ছ’টি বিষয়ে সরাসরি বোর্ডের নম্বরের ভিত্তিতেই ভর্তি হবে।

উল্লেখ্য, যাদবপুরে প্রবেশিকা তুলে দেওয়া নিয়ে এর আগেও একবার জটিলতা তৈরি হয়েছিল। এ বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বার বার নিজের মতামত প্রকাশ করে বলেছেন যে, একমাত্র কলাবিভাগ নয়, সব বিভাগের ভর্তির জন্য মেধা তালিকাই একমাত্র বিবেচ্য হওয়া উচিত। কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্তের বিরোধিতায় উপাচার্যকে ঘেরাও করে বিক্ষোভ দেখান পড়ুয়ারা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here