climate news

 

Highlights

  •  চলতি বছরে আরও চরম আবহাওয়ার মুখোমুখি হতে চলেছে পৃথিবী, সম্প্রতি এমনই সতর্কবাণী শোনালেন রাষ্ট্রপুঞ্জের বিজ্ঞানীরা
  • রিপোর্টে দেখা গিয়েছে ২০১৬ সালের পর ২০১৯ সবচেয়ে উষ্ণ বছর ছিল
  •  ২০২০ সালেও একইভাবে বাড়ছে তাপমাত্রা

মহানগর ওয়েবডেস্ক: আমাজনের বিধ্বংসী আগুন বা অস্ট্রেলিয়ার বুশ ফায়ার অথবা সামুদ্রিক প্রাণীদের জন্য সবচেয়ে উষ্ণ বছর, ২০১৯ সালে বেশ কিছু কঠিন প্রাকৃতিক সমস্যার সাক্ষী থেকেছে বিশ্ববাসী। বিশ্ব উষ্ণায়নের প্রভাবে গোটা বিশ্বেরই যে আবহাওয়ায় পরিবর্তন আসছে তা কিছুটা হলেও উপলব্ধি করেছেন সাধারণ মানুষ। তবে এতেই শেষ হচ্ছে না। চলতি বছরে আরও চরম আবহাওয়ার মুখোমুখি হতে চলেছে পৃথিবী, সম্প্রতি এমনই সতর্কবাণী শোনালেন রাষ্ট্রপুঞ্জের বিজ্ঞানীরা।

ওয়ার্ল্ড মিটিয়রোলজিক্যাল অর্গানাইজেশনের বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন পৃথিবীর তাপমাত্রা বাড়ার কুপ্রভাব ইতিমধ্যেই পৃথিবীর পরিবেশের ওপর পড়েছে। সুমেরুর বরফ গলছে, সমদ্রের জলস্তর বাড়ছে, সমুদ্রের তাপমাত্রাও বাড়ছে। ফলে আবহাওয়া চরমভাবাপন্ন হয়ে যাচ্ছে। তাদের প্রকাশিত রিপোর্টে দেখা গিয়েছে ২০১৬ সালের পর ২০১৯ সবচেয়ে উষ্ণ বছর ছিল।

কিন্তু এখানেই বিজ্ঞানীদের চিন্তা শুরু। ২০২০ সালেও একইভাবে বাড়ছে তাপমাত্রা। সেই কারণেই অস্ট্রেলিয়ার দাবানল এত ভয়াবহ আকার নিয়ে নিয়েছে। ওয়ার্ল্ড মিটিয়রোলজিক্যাল অর্গানাইজেশনের প্রধান পেত্তেরি তালাস জানিয়েছেন,

‘দুর্ভাগ্যবশত চলতি বছরেও পৃথিবীর উষ্ণতা প্রচণ্ডভাবে বাড়বে। আগামী বছরগুলিতেও তার পরিবর্তনের কোনও সম্ভাবনা নেই। অত্যধিক পরিমাণে গ্রিনহাউজ গ্যাসের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ার ফলেই এরম হচ্ছে। ১৯৮০ সাল থেকেই আমরা দেখেছি প্রতিটি বছর বিগত বছরের তুলনায় বেশি উষ্ণ। এখনও পর্যন্ত পৃথিবীর গড় উষ্ণতা ১.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেড়েছে। এই হারেই যদি কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ বাড়তে থাকে, তাহলে চলতি শতাব্দীর শেষে পৃথিবীর গড় উষ্ণতা পাঁচ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত বেড়ে যেতে পারে।’

এর পাশাপাশি তাদের বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন শেষ পাঁচ বছরে এই তাপমাত্রা বৃদ্ধি আরও বেশি ত্বরান্বিত হয়েছে। আর এই বর্ধিত তাপমাত্রার সিংহভাগ সঞ্চিত হয়েছে সমুদ্রে। মহাসাগরের তাপমাত্রা বাড়ার ফলেই (এল নিনো) কিন্তু সাইক্লোনের সংখ্যা বেড়েছে। ফলে এখন থেকেই সতর্ক হওয়ার আবেদন জানিয়েছেন রাষ্ট্রপুঞ্জের বিজ্ঞানীরা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here