নিজস্ব প্রতিনিধি : গত ১৪ই ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলায় প্রাণ হারিয়েছিলেন ৪৪জন জওয়ান। তাঁদের মধ্যে ছিলেন হাওড়ার বাসিন্দা বাবলু সাঁতরাও। ভালোবাসার দিনেই স্বামীকে হারিয়ে শোকে বিহ্বল হয়ে আছেন বাবলুর স্ত্রী। শুধু পরিবারই নয়, পাড়ার ছেলের অকাল মৃত্যুতে শোকাচ্ছন্ন গোটা এলাকা। তবে মঙ্গলবার ভোররাতে পুলওয়ামা হামলার বদলা নিয়েছে ভারত। পাকিস্তানের বালাকোটে ঢুকে শত্রু ঘাঁটি ধ্বংস করে দিয়েছে ভারতীয় বাসুসেনা. মিরাজ বিমানের বিধ্বংসী হামলায় খতম হয়েছে তিন শতাধিক জইশ জঙ্গি।

মঙ্গলবার সকাল থেকেই গোটা দেশজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে এই খবর। সংবাদ মাধ্যমে ভারতের এয়ার স্ট্রাইকের খবর পেয়ে স্বস্তি পান বাবলুর স্ত্রীও। যদিও তিনি প্রথম থেকেই যুদ্ধের বিরুদ্ধে অবস্থান স্পষ্ট করেছেন। বাবলুর স্ত্রীর দাবি, আর কারোর কোল খালি হোক, আর কেউ পরিবারের সদস্যকে হারাক, তা তিনি চান না। যুদ্ধ মানেই শহিদ হবেন বহু জওয়ান, তাঁর এই অবস্থা অন্য কারোর হোক তা কোনও ভাবেই চান না বাবলুর স্ত্রী। যদিও ভারতীয় বায়ুসেনার এই বদলায় খুশি তিনি।

এদিন বাবলুর বাড়িতে গিয়ে তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন সিআরপিএফের আধিকারিকরাও। আশ্বাস দেন পাশে থাকার। বাবলু না থাকলেও তাঁর পরিবারের যে কোনও সুখে দুঃখে গোটা বাহিনী পাশে থাকবে বলে জানান তিনি। পাশাপাশি কেন্দ্রীয় সরকারে বাবলুর পরিবারের একজনকে চাকরির প্রতিশ্রুতিও দেওয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here