নিজের বাবার তৈরি করা আইনের গেরোয় গৃহবন্দি ফারুখ আবদুল্লা

0
786
farukh kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: সালটা ১৯৭০৷ জম্মু-কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী শেখ আবদুল্লা৷ কাঠ চোরাচালানকারীদের বিরুদ্ধে তিনি জন নিরাপত্তা আইন প্রথম উপত্যকায় চালু করেন৷ এই আইন অনুসারে সবোর্চ্চ দুই বছর পর্যন্ত বিনা বিচারে কাউকে আটক রাখা যাবে৷ পরবর্তীকালে এই আইন জঙ্গিদমন, পাথরবাজদের বিরুদ্ধে প্রণয়ন করা হত৷ প্রশ্ন তিনবারের মুখ্যমন্ত্রী তথা শ্রীনগরের সাংসদ ফারুক আবদুল্লা কি জঙ্গি, নাকি চোরাচালানকারী, নাকি পাথরবাজ? তাহলে এমন আইনে আজ কেন তাঁকে গৃহবন্দি করা হয়েছে? মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে জানতে চেয়েছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী কপিল সিব্বল৷ তাঁর কটাক্ষ, কাশ্মীর যদি শান্তই থাকে তবে কেন ফারুখ আবদুল্লাকে গৃহবন্দি করা হল?

৫ আগস্ট জম্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা লোপের আগের দিন থেকে সেখানকার প্রধান বিরোধী নেতা-নেত্রীদের জেলে অথবা নিজের গৃহে বন্দি করেছে মোদী প্রশাসন৷ এখনও পর্যন্ত তাঁদের কাউকে মুক্তি দেওয়া হয়নি৷ এদিকে কেন্দ্রীয় সরকারের দাবি ৫ আগস্টের পর থেকে উপত্যকায় একজনেরো মৃত্যু হয়নি৷ একেবারেই শান্ত আছে কাশ্মীর৷ তবে কেন বিরোধীদের ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে না? তার উত্তরে প্রশাসনের যুক্তি, এদের মুক্তি দিলে কাশ্মীরের পরিস্থিতি হিংসাত্মক হতে পারে৷ বৃদ্ধ ফারুক জানান, তাঁর জীবদ্দশায় এমন হিন্দুস্থান তিনি আগে কখনও দেখেননি৷

সোমবার থেকে ফারুখের গ্রেফতারি নিয়ে রীতিমোত চোর পুলিশ খেলছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক৷ সোমবার যেমন এমডিএমকে নেতা ভাইকোর করা মামলার শুনানিতে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক সুপ্রিমকোর্টকে জানিয়েছিল ফারুখ আবদুল্লাকে গ্রেফতার করা হয়নি৷ বাস্তেব অমিতের মন্ত্রক শীর্ষ  আদালতকে ভুল কথা বলেছে৷ আসলে সোমবারেই ফারুখকে গৃহবন্দি করেছে প্রশাসন জন নিরাপত্তা আইনে৷ যেই আইন চালু করেছিলেন তাঁর বাবা শেখ আবদুল্লা৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here