kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি: সুপ্রিম কোর্টের অনুমতি মিলতেই অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ নিয়ে তৎপরতা শুরু হয়। বহুচর্চিত এই রাম মন্দির নির্মাণের জন্য সাধারণ মানুষের কাছ থেকে অর্থ সংগ্রহের পরিকল্পনা করা হয়। সেই মতো গোটা দেশ থেকে অর্থ সংগ্রহ চলতে থাকে। জানা গিয়েছে, এখনও পর্যন্ত প্রায় দুই হাজার কোটি টাকার বেশি জমা পড়েছে রাম মন্দির নির্মাণ তহবিলে। রাষ্ট্রপতি একাধিক রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী-সহ বেশ কয়েকটি রাজ্যের রাজ্যপাল লক্ষাধিক টাকা করে সাহায্য করেছেন। সাধারণ মানুষ থেকে বিত্তশালী- যে যেমন পেরেছেন সাহায্য করেছেন এই রাম মন্দির নির্মাণ প্রকল্পে। তবে কাউকে বাধ্য করা হয়নি সাহায্য দেওয়ার জন্য।

​কয়েকদিন আগে জানা যায়, ‘শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষেত্র ট্রাস্ট’ প্রায় দুই হাজার কোটি টাকার বেশি সংগ্রহ করেছে রাম মন্দির নির্মাণ তহবিল। চেক ও ডিমান্ড ড্রাফটের মাধ্যমে এই অর্থ সংগ্রহ করা হয়েছে। গোটা দেশ থেকে চেকের মাধ্যমে এই অর্থ সংগ্রহ করা হয়। ট্রাস্টের হাতে যে চেক আসে, তার মধ্যে প্রায় দেড় হাজার চেক বাউন্স করেছে বলে জানা যাচ্ছে। বাউন্স হওয়া ওই চেকের টাকার অঙ্ক প্রায় ২২ কোটি!

​ট্রাস্টের এক সদস্য জানিয়েছেন, যাদের চেক বাউন্স করেছে তাদের কাছে সেই চেকগুলি ফিরিয়ে দিয়ে নতুন চেক দেওয়ার অনুরোধ করা হবে। ইতিমধ্যে সেই প্রক্রিয়া শুরু করা হয়েছে। এই দেড় হাজার চেক বাউন্স হওয়ার কারণ হিসেবে জানা যাচ্ছে, অ্যাকাউন্টে পর্যাপ্ত অর্থ না থাকা, কোনও কোনও ক্ষেত্রে ওভাররাইটিং বা সই না মেলা অন্যতম কারণ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here