ডেস্ক: ১৪৪ ধরা অমান্য, পুলিশকে নিগ্রহ ও হেনস্থা এবং সরকারি কাজে বাঁধা দেওয়া সহ একাধিক অভিযোগে জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা দায়ের হল আসানসোলের সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়োর বিরুদ্ধে। অন্যদিকে পাল্টা রাজ্য পুলিশের ডিসি রূপেশ কুমারের বিরুদ্ধে তাঁকে হেনস্থার অভিযোগ তুলে মামলা দায়ের করলেন বাবুল সুপ্রিয়। সবমিলিয়ে আসানসোলের ঘটনা নিয়ে নতুন করে তরজা শুরু হল রাজ্য রাজনীতিতে।

উল্লেখ্য, রামনবমীর মিছিলকে ঘিরে গত কয়েকদিন ধরে উত্তপ্ত রানিগঞ্জ, আসানসোলের মতো এলাকাগুলি। ঘটনার জেরে আসানসোলে ১৪৪ ধারা জারি করেছে প্রশাসন। বৃহস্পতিবার সকালে ১৪৪ ধারা অমান্য করে নিজের দলীয় কর্মী ও অনুগামিদের নিয়ে আসানসোলে ঢোকার চেষ্টা করেন সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়। খুব স্বাভাবিকভাবেই পুলিশ বাধা দেয় তাঁকে। ঘটনার জেরে পুলিশের সঙ্গে ধ্বস্তাধস্তি ও কথা কাটাকাটিও হয় বাবুলের। শেষে সাংবাদিকদের সামনে নিজের ক্ষোভ উগরে দেন বাবুল।

এদিন সাংবাদিকদের সামনে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করার বিপক্ষে রাজ্যের সিদ্ধান্তকে একহাত নিয়ে অশান্ত পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাওয়ায় সরকারকে আক্রমণ করেন তিনি। সংবাদ মাধ্যমকে এদিন বাবুল বলেন, আসানসোলের পরিস্থিতি সামাল দিতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে প্রশাসন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং-এর সঙ্গেও কথা বলেছেন বলে জানান তিনি। একজন জনপ্রতিনিধি হিসাবে স্থানীয় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর স্বার্থেই যেতে চাইছিলেন তিনি। সেই ঘটনায়, রাজ্যসরকারের তরফে তাঁর বিরুদ্ধে ১৪৪ ধরা অমান্য, পুলিশকে নিগ্রহ ও হেনস্থা এবং সরকারি কাজে বাঁধা দেওয়া সহ একাধিক অভিযোগে জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা দায়ের হওয়ার পর, পাল্টা রাজ্য পুলিশের ডিসি রূপেশ কুমারের বিরুদ্ধে তাঁকে হেনস্থার অভিযোগ তুলে মামলা দায়ের করেন বাবুল সুপ্রিয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here