CM bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: এবার রাজ্যের সব বিডিও, মহকুমা শাসক ও অতিরিক্ত জেলাশাসকদের কাজের ওপরেও নিয়মিত নজরদারির রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পশ্চিমবঙ্গের ২৩টি জেলার প্রশাসনিক কার্যকলাপ সামলান ৩৪৪ জন বিডিও, ৬৬ জন এসডিও ও ৬৯ জন অতিরিক্ত জেলা শাসক। এবার এদের প্রত্যেকের কাজ কর্মের বিশদ বিবরণ সংংক্রান্ত রিপোর্ট সরাসরি নবান্নে মুখ্যমন্ত্রীর দপ্তরে জমা পড়বে বলে জানা গিয়েছে।

সম্প্রতি আমফানের ক্ষতিপূরণ বিলি নিয়ে শাসকদলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে ব্যপক দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছিল। তারপরেই দলের নেতা কর্মীদের সংযত হতে বার্তা দিয়েছেন তৃণমূল নেত্রী-মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু দুর্নীতিতে নাম জড়ায় প্রশাসনিক আধিকারিকদের একাংশের। সেই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতেই এই সিদ্ধান্ত বলে প্রশাসনিক মহলের অভিমত৷ জানা গিয়েছে, বছরভরই এই নজরদারির কাজ চলবে। এসডিও, বিডিও ও এডিএমদের রোজকার কাজের বিবরণী আসবে নবান্ন। তার পর সেগুলি খতিয়ে দেখবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কোনও গাফিলতি চোখে পড়লেই ব্যবস্থা নেবেন তিনি।

সম্প্রতি ফের আরেক দফায় আমফানের ক্ষতিপূরণের জন্য আবেদন জানানোর সুযোগ দেয় পশ্চিমবঙ্গ সরকার। দু’‌দিনে রাজ্যের ৬ জেলা থেকে প্রায় ৫ লক্ষ ৭০ হাজার আবেদন জমা পড়ে। ঝাড়াই–বাছাই করে আজ, ১৪ অগস্ট আবেদনকারীদের তালিকা প্রকাশ করা হবে জেলাশাসকের দপ্তর, বিডিও এবং পুরসভা কার্যালয়ে। ১৯ অগস্ট এর চূড়ান্ত তালিকা দেওয়া হবে ‘‌এগিয়ে বাংলা’‌ ওয়েবসাইটে। তাই আবেদনকারী বাছাইয়ের কাজটা যাতে সঠিকভাবে হয় তার জন্য প্রশাসনিক আধিকারিকদের সাবধান করতেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী বলে নবান্ন সূত্রে জানা গিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here