kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: চিঠি কাণ্ডের জেরে শাস্তি? পদ খোয়াতে হলো গুলাম নবি আজাদকে। কংগ্রেসের সাংগঠনিক স্তরে বড়সড় রদবদল ঘটালেন সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। সাধারণ সম্পাদক পদ সহ হরিয়ানায় এআইসিসির পর্যবেক্ষক পদ থেকেও সরিয়ে দেওয়া হয়েছে বর্ষিয়ান কংগ্রেস নেতা গুলাম নবি আজাদকে। তার জায়গায় হরিয়ানায় নতুন পদ পেয়েছেন বিবেক বনসল। সম্প্রতি কংগ্রেসের অন্দরের সংস্কার এবং স্থায়ী সভাপতির দাবি করে সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধীকে যারা চিঠি লিখেছিলেন, তাদের মধ্যে অন্যতম গুলাম নবি আজাদ।

সূত্রের খবর, গুলাম নবি আজাদ কে সরিয়ে দেওয়ার পর কংগ্রেসের গুরুত্ব বাড়তে চলেছে রন্দীপ সিং সুরজেওয়ালার। তাকে সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে। এছাড়া সোনিয়া গান্ধীকে পরামর্শ দেওয়ার জন্য ছয় সদস্যের একটি উচ্চক্ষমতাসম্পন্ন কমিটি গঠন করা হয়েছে, সেই কমিটিতে অবশ্য রয়েছেন আজাদ। তবে পদ হারানোর পর তার কী প্রতিক্রিয়া হতে পারে তা এখনও আন্দাজ করা যাচ্ছে না। আজাদ ছাড়াও এই কমিটিতে রয়েছেন, একে এন্টনি, আহমেদ প্যাটেল, অম্বিকা সোনি, কেসি বেনুগোপাল এবং মুকুল ওয়াস্নিক।

উল্লেখ্য, দলের অন্দরে সংস্কার চেয়ে এবং স্থায়ী সভাপতি দাবি করে সোনিয়া গান্ধীকে চিঠি লিখে আজাদ বলেছিলেন, কংগ্রেসের অভ্যন্তরে যদি ভোট না হয় তাহলে আগামী ৫০ বছর বিরোধীদল হিসেবেই থেকে যাবে কংগ্রেস, ক্ষমতায় আসা তাদের পক্ষে সম্ভব হবে না। এই কারণে দলের অন্দরে সংস্কার প্রয়োজন। অনেক আগেই এই কাজ করা উচিত ছিল বলে মনে করেন তিনি। কিন্তু তখন যখন হয়নি, এখন এই সংস্কার অত্যন্ত প্রয়োজনীয় বলে মত তাঁর। যদিও সেই ঘটনার পর আজ পদ হারাতে হলো তাঁকে, এমনটাই মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here