ডেস্ক: কর্ণাটকে বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি ম্যাজিক ফিগারের থেকে ৮টি আসন পিছিয়ে থাকার ফলে খেলা রীতিমতো জমে উঠেছে। বিজেপি ও কংগ্রেস উভয় পক্ষই উঠেপড়ে লেগেছে সরকার গঠন করতে। কিন্তু সরকার গঠনের বল এখন রাজ্যপালের কোর্টে। সরকার গঠনের প্রথম সুযোগ যে তিনি বিজেপিকে দেবেন একথা এখন থেকেই বলে দেওয়া যাচ্ছে। অন্যদিকে, জেডিএস বিধায়কদের সঙ্গে বিজেপির ঘোড়া কেনা বেচার বিষয়ও উঠে এসেছে। ফলে নিজেদের বিধায়কদের বাঁচিয়ে রাখতে ইতিমধ্যেই তাদের অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে জেডিএসের শীর্ষ স্তরে।

এই সব বিষয় নিয়ে একপ্রস্থ নাটক চলার মধ্যেই বিজেপির বিরুদ্ধে মারাত্মক অভিযোগ তুলেছেন কংগ্রেস নেতা গুলাম নবি আজাদ। তাঁর দাবি, বিজেপি তাদের বিধায়কদের হুমকি দিচ্ছেন। রাজ্যপালের বিরুদ্ধেও মারাত্মক অভিযোগ তুলে তিনি বলেন, ‘রাজ্যপাল যদি সাংবিধানিক দায়িত্ব পালন না করে আমাদের সরকার গঠনের জন্য আমন্ত্রন না জানান, তবে এখানে খুনোখুনি এবং সংঘর্ষ হবে।’

এরমধ্যে কংগ্রেসের বিধায়ক আমরেগৌড়া বিজেপির বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ তুলে বলেছেন যে, বিজেপি নাকি তাঁকে ক্যাবিনেট মন্ত্রীর অফার দিয়েছিল। যদিও সেই অফার তিনি গ্রহণ করেন নি বলে দাবি করেছেন। এই প্রসঙ্গে গুলাম নবি আজাদ বলেন, বিজেপি সবচেয়ে বড় দল হওয়া সত্ত্বেও তাদের কাছে সংখ্যাগরিষ্ঠতা নেই। আমাদের কাছে (কংগ্রেস-জেডিএস) ১১৭টি আসন রয়েছে। রাজ্যপালের পক্ষপাতিত্ব করা উচিত নয়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here