kolkata bengali news
Highlights

  • অভিযোগ, পড়াতে এসেই শুরু করেছিল যৌন নির্যাতন
  • মেডিক্যাল টেস্টে ধরা পড়ে সত্যতা
  • সালিশি সভা থেকেই অভিযুক্তকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়

নিজস্ব প্রতিবেদক, পশ্চিম মেদিনীপুর: নয় বছরের বালিকার শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠল ৬০ বছরের বৃদ্ধের বিরুদ্ধে। বালিকার গৃহ শিক্ষক ছিলেন ওই অভিযুক্ত। তাঁকে আটক করা হয়েছে। ঘটনায় এলাকা জুড়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে দাসপুর থানার গোকুল নগরে। ২২ ফেব্রুয়ারি রাত ১০টা নাগাদ গোকুলনগরের গ্রামের সালিশি সভা থেকে অভিযুক্ত গৃহশিক্ষককে দাসপুর থানার পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। প্রাইভেট টিউটরের বাড়ি পাশের গ্রাম দাদপুরে।

অভিযোগ, কয়েক দিন আগে ওই ছাত্রীকে পড়াতে এসে তাকে যৌন নির্যাতন করে অভিযুক্ত শিক্ষক। নাবালিকা ছাত্রীটি বিষয়টি তার বাড়িতে বলে। সব শুনে পরিবারের পক্ষ থেকে মেডিক্যাল টেস্ট করানো হয়। রিপোর্টে ঘটনার সত্যতা ধরা পড়ে। এর পর ওই গৃহ শিক্ষককে গ্রামের সালিশি সভায় নিয়ে আসা হয়।

দাসপুর থানার পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয় অভিযুক্ত গৃহ শিক্ষককে। থানা সূত্রে জানানো হয়েছে, পক্সো আইনে মামলা রুজু করে অভিযুক্ত গৃহ শিক্ষককে ঘাটাল আদালতে তোলা হবে। এই ঘটনায় এলাকা জুড়ে তীব্র চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here