নিজস্ব প্রতিবেদক,ব্যারাকপুর:সাত বছরের এক নাবালিকা শিশুর ওপর যৌন নির্যাতন চালানোর অভিযোগে গ্রেফতার করা হল বৃদ্ধ প্রতিবেশীকে। অভিযুক্ত ওই বৃদ্ধের নাম অহীন্দ্র ঢালি (৫৫)। চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনা জেলার ব্যারাকপুর মহকুমার শ্যামনগরের বাসুদেবপুর এলাকায় । ঘটনায় জগদ্দল থানার পুলিশ অভিযুক্ত বৃদ্ধ অহিণ্দ্র ঢালীকে গ্রেপ্তার করেছে।

গত বুধবার লক্ষ্মীপুজোর রাতে পঞ্চান্ন বছর বয়স্ক এক ব্যক্তি প্রতিবেশী নাবালিকাকে নিজের বাড়িতে নিয়ে গিয়ে পরিবারের অন্য সদস্যদের অনুপস্থিতির সু্যোগে যৌন নির্যাতন বলে অভিযোগ। জানা গিয়েছে নির্যাতিতা ওই শিশুটিকে নিজের বাড়িতে প্রসাদ খাওয়ানোর নাম করে নিয়ে গিয়ে ঘরের দরজা বন্ধ করে, জোর জবরদস্তী যৌন নির্যাতন চালানোর চেষ্টা করে ওই ব্যক্তি। ওই নাবালিকা অহিণ্দ্র ঢালীকে দাদু বলে ডাকত বলেও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে। লক্ষীপুজোর রাতে অহিন্দ্র দাদু প্রসাদ খেতে ডেকেছে শুনে সে ওই ব্যক্তির বাড়িতে যায় নাবালিকা। এরপরই শিশুটি অভিযুক্তের বাড়িতে গেলে দেখে ওই বৃদ্ধ ছাড়া বাড়িতে আর কেউ নেই। তখনই জোর করে অভিযুক্ত বৃদ্ধ নাবালিকার সঙ্গে দুর্ব্যবহার করে বলে জানা যায়। সেই সময় কোনও মতে ওই শিশু বৃদ্ধের হাত ছেড়ে পালিয়ে এসে বাড়ির অভিভাবকদের বিষয়টি জানায়। এরপর নির্যাতিতার বাড়ির লোকজন জগদ্দল থানায় ওই ব্যক্তির নামে শ্লীলতাহানির অভিযোগ দায়ের করে।

বৃহস্পতিবার রাতে তদন্তে নেমে অভিযুক্ত অহিন্দ্র ঢালিকে গ্রেফতার করে জগদ্দল থানার পুলিশ। পুলিশের পক্ষ থেকে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ১২ পকসো ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। শেষে শুক্রবার ধৃতকে ব্যারাকপুর মহকুমা আদালতে তোলা হলে আদালত শিশুটির গোপন জবানবন্দি নেয়। এরপর বিচারক অভিযুক্ত অহিন্দ্র ঢালিকে চোদ্দ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন। শুক্রবারই বারাকপুর আদালতে হয়েছে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here