arun-jetli

মহানগর ওয়েবডেস্ক: গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় ফের দিল্লির এইমসে ভর্তি হয়েছেন দেশের প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি৷ অথচ ৭৩তম স্বাধীনতা দিবসের দিনেই তাঁকে ‘মেরে ফেললেন’ গুজরাতের পর্যটন প্রতিমন্ত্রী তথা কচ্ছের বিজেপি বিধায়ক ভাসান আহির৷ তাঁর মৃত্যুর খবর ঘোষণা করে বিপাকে গুজরাতের শাসক দল ভারতীয় জনতা পার্টি৷ ওই মন্ত্রী শুধু মন্ত্রীর মৃত্যুর খবরই ঘোষণা করেননি তাঁর জন্য ২ মিনিট নীরবতা পালনও করেছেন।এমনকী এই বিষয়ে সরকারিভাবে প্রেস বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছিল!

৯ আগস্ট থেকে এইমসে ভর্তি প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর অবস্থা বেশ আশঙ্কাজনক। তিনি কিডনিজনিত রোগে দীর্ঘকাল অসুস্থ৷ অসুস্থতার কারণে তিনি এবার লোকসভা নির্বাচনে লড়েননি৷ এই জন্য এখন তিনি প্রত্যক্ষ রাজনীতি থেকে প্রায় সন্ন্যাস নিতে বাধ্য হয়েছেন৷ তাঁর অসুস্থতার খবরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী থেকে শুরু করে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ পর্যন্ত সবাই গভীর উদ্বিগ্ন৷ তবে আহিরেরে এহেন কাণ্ড নিয়ে গুজরাত রাজ্য ও জাতীয় বিজেপির পক্ষ থেকে কোনও প্রতিক্রিয়া জানানো হয়নি৷

গুজরাতের কচ্ছ প্রদেশের মাণ্ডবী তালুকার বিদাদ গ্রাম। সেখানে স্থানীয় কৃষকরা এক অনুষ্ঠানে রাজ্যের পর্যটন মন্ত্রী ভাসান আহিরকে প্রধান অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। সূত্রের খবর অনুযায়ী, অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে, পর্যটন প্রতিমন্ত্রী ভাসান আহির দেশের প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর মৃত্যুর খবর দেন। যদিও সেই খবরটি সত্য নয়। মন্ত্রী কোথা থেকে সেই খবর পেলেন তা নিয়েও প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে মন্ত্রী ২ মিনিট নীরবতা পালনের কথাও জানান। তবে খবর ছড়িয়ে পড়তেই মন্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও, তাঁকে পাওয়া যায়নি। এদিন এই খবরের জেরে বিপাকে পড়ে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বও। যদিও পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার চেষ্টা করেন, সেখান বিজেপি নেতা রাজেন্দ্র জাদেজা। তাঁর দাবি, অনুষ্ঠানে তিনি আগাগোড়াই উপস্থিত ছিলেন। এই ধরনের কোনও ঘটনা ঘটেনি বলে দাবি করেছেন তিনি। জেলা কালেক্টর আর মোহন অবশ্য নিজে ওই সভায় উপস্থিত ছিলেন না৷ তবে প্রয়োজনে বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করবেন বলে জানান তিনি৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here