kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: একটা সময় ওপেন করার সুযোগ দেওয়ার জন্য টিম ম্যানেজমেন্টের কাছে কার্যত ‘ভিক্ষা’ চাইতে হয়েছিল ক্রিকেট ঈশ্বরকেও! সুদীর্ঘ ক্রিকেট কেরিয়ারের স্মৃতিচারণায় সম্প্রতি এমনটাই জানালেন শচীন তেন্ডুলকর। তিনি জানান, ১৯৯৪ সালে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে একটি ম্যাচে ওপেন করার জন্য রীতিমত হাজারবার অনুরোধ করতে হয়েছিল তাঁকে।

এক সোশ্যাল নেটয়ার্কিং সাইটে এক ভিডিও আপলোড করে শচীন জানান,

‘১৯৯৪ সালে আমি যখন প্রথম ওপেনিং করার সুযোগ পাই, তখন সবাই চাইত নিজের উইকেট বাঁচিয়ে খেলতে। কিন্তু আমি একটু আলাদা ছিলাম। আমি ভাবতাম আমি হয়তো আগ্রাসী খেলা খেলে বিপক্ষ বোলারদের বিরুদ্ধে ভাল খেলতে পারব। কিন্তু কেউ আমায় সুযোগ দিতে রাজি ছিল না। তাঁদের কাছে রীতিমত ওপেনিংয়ে সুযোগ দেওয়ার জন্য ‘ভিক্ষা’ করতে হয়েছিল আমায়। আমি বলেছিলাম, আমি যদি ব্যর্থ হই, আর কখনও এমন অনুরোধ করব না।’

নিজের জীবনের এই অজানা তথ্য তুলে ধুরে ফ্যানদের অনুপ্রেরিত করার চেষ্টা করেন মাস্টার ব্লাস্টার। তিনি আরও বলেন,

‘নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথমবার ওপেন করে ৪৯ বলে ৮২ রান করেছিলাম। তারপর আর কিন্তু আমায় কাউকে অনুরোধ করতে হয়নি। সকলেই আমায় ওপেন করাতে রাজি হয়ে যায়। আমি আদতে বলতে চাই, ব্যর্থতাকে ভয় পেলে চলবে না।’

প্রসঙ্গত, ওয়ানডে ক্রিকেটে ৪৯টি সেঞ্চুরি করেছেন শচীন। তবে প্রথম সেঞ্চুরি করেন অভিষেকের পাঁচ বছর পর। ১৯৯৪ সালের সেপ্টেম্বর মাসে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম সেঞ্চুরিটি করেছিলেন ক্রিকেটের ঈশ্বর।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here